মাধ্যমিক ভূগোল সহায়ক – প্রশ্ন উত্তর | ভারতের খনিজ সম্পদ (আঞ্চলিক ভূগোল ষষ্ঠ অধ্যায়)

3381

ভারতের খনিজ সম্পদ (আঞ্চলিক ভূগোল ষষ্ঠ অধ্যায়) WBBSE

1. কয়লা কত প্রকার ও কী কী?
উত্তরঃ চার প্রকার। অ্যানথ্রাসাইট, বিটুমিনাস, লিগনাইট এবং পিট।

2. ক্রিয়োজোট কী এবং এটি কী কাজে ব্যবহৃত হয়?
উত্তরঃ কয়লার উপজাত দ্রব্য। এটি কীটনাশক উৎপাদনে ব্যবহৃত হয়।

3. বিটুমিনাস জাতীয় কয়লায় কী পরিমাণ কার্বন থাকে?
উত্তরঃ শতকরা ৫০-৮৫ ভাগ।

4. সবচেয়ে উৎকৃষ্ট শ্রেণীর কয়লা কোনটি?
উত্তরঃ অ্যানথ্রাসাইট।

5. ভারতের একটি লিগনাইট কয়লাখনির নাম কর।
উত্তরঃ তামিলনাড়ুর দক্ষিণে আর্কটে নিভেলি।

6. কয়লা উৎপাদনে পৃথিবীতে ভারতের স্থান কোথায়?
উত্তরঃ পঞ্চম।

7. ভারতের প্রাচীনতম তেল উৎপাদক কেন্দ্রটির নাম কী?
উত্তরঃ অসমের ডিগবয়।

8. খনিজ তেলের দুটি উপজাত দ্রব্যের নাম লেখ।
উত্তরঃ পিচ ও ন্যাপথা।

9. প্যারাফিন কী?
উত্তরঃ পেট্রোলিয়ামের উপজাত দ্রব্য।

10. ভারতের দুটি খনিজ তেল উত্তোলক অঞ্চলের নাম কর।
উত্তরঃ অসমের ঊর্ধ্ব ব্রহ্মপুত্র উপত্যকা এবং মুম্বাই দরিয়া বা বোম্বে হাই।

11. সাগর সম্রাট কী?
উত্তরঃ মুম্বাই দরিয়া বা বোম্বে হাই অঞ্চলের খনিজ তেল উত্তোলনকারী একটি ভাসমান জাহাজের নাম সাগর সম্রাট।

12. গুজরাটের একটি তেল শোধনাগারের নাম লেখ।
উত্তরঃ কয়ালি।

13. ত্রিপুরার একটি তেলখনন ক্ষেত্রের নাম উল্লেখ কর।
উত্তরঃ বড়মুড়া।

14. পশ্চিমবঙ্গের তেল শোধনাগারটি কোথায় অবস্থিত?
উত্তরঃ হলদিয়াতে।

15. অসমের একটি তেল খনন ক্ষেত্রের নাম কর।
উত্তরঃ নাহারকাটিয়া।

16. ভারতে বিদ্যুৎশক্তির মূল উৎসগুলি কী কী?
উত্তরঃ কয়লা, খনিজতেল, খরোস্রোতা নদী, ইউরেনিয়াম ও থোরিয়াম।

17. দুটি অপ্রচলিত শক্তির উৎসের নাম লেখ।
উত্তরঃ জোয়ার-ভাটা এবং সৌরশক্তি।

18. তাপবিদ্যুৎ কাকে বলে?
উত্তরঃ কয়লা পুড়িয়ে যে বিদ্যুৎ পাওয়া যায় তাকে তাপবিদ্যুৎ বলে।

19. পশ্চিমবঙ্গের দুটি তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের নাম লেখ।
উত্তরঃ কোলাঘাট, ব্যান্ডেল।

20. উত্তর ভারতের একটি তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের নাম কর।
উত্তরঃ দিল্লীর বদরপুর।

21. জলবিদ্যুৎ শক্তি বলতে কী বোঝ?
উত্তরঃ খরোস্রোতা নদীর জলপ্রবাহের সাহায্যে টারবাইন ঘুরিয়ে যে বিদ্যুৎশক্তি উৎপাদন করা হয় তাকে জলবিদ্যুৎ বলে।

22. দক্ষিণ ভারতের একটি জলবিদ্যুৎ উৎপাদন কেন্দ্রের নাম কর।
উত্তরঃ কর্ণাটকের সরাবতী।

23. ভারতের একটি পারমানবিক উৎপাদন কেন্দ্রের নাম কর।
উত্তরঃ মহারাষ্ট্রের তারাপুর।

24. আকরিক লোহার প্রধান ব্যবহার কী?
উত্তরঃ লৌহ-ইস্পাত শিল্পের কাঁচামাল হিসাবে।

25. সবচেয়ে উৎকৃষ্ট আকরিক লোহার নাম কী?
উত্তরঃ ম্যাগনেটাইট।

26. ভারতের কোন রাজ্য আকরিক লোহা উত্তোলনে প্রথম?
উত্তরঃ মধ্যপ্রদেশ।

27. ভারত কোন কোন দেশে আকরিক লোহা রপ্তানি করে?
উত্তরঃ জাপান, দক্ষিণ কোরিয়া, ইতালি, ইরান প্রভৃতি দেশে।

28. দুই প্রকার আকরিক লোহার নাম লেখ।
উত্তরঃ ম্যাগনেটাইট, হেমাটাইট।

29. দুটি ম্যাঙ্গানিজ আকরিকের নাম লেখ।
উত্তরঃ সিলোমিলেন এবং ব্রনাইট।

30. ভারতের একটি ম্যাঙ্গানিজ উৎপাদন কেন্দ্রের নাম লেখ।
উত্তরঃ উড়িষ্যার গাংপুর।

31. ভারত বিশ্বের কোন কোন দেশে ম্যাঙ্গানিজ রপ্তানি করে?
উত্তরঃ আমেরিকা যুক্তরাষ্ট্র, ব্রিটিশ যুক্তরাজ্য, ফ্রান্স, জার্মানী।

32. বক্সাইট কিসের আকরিক?
উত্তরঃ অ্যালুমিনিয়াম।

33. ভারতের কোন রাজ্য বক্সাইত উত্তোলনে প্রথম স্থান অধিকার করে?
উত্তরঃ উড়িষ্যা।

34. অ্যালুমিনিয়াম কোন খনিজ আকর থেকে উৎপন্ন হয়?
উত্তরঃ বক্সাইট থেকে।

35. অভ্রের দুটি আকরিকের নাম লেখ।
উত্তরঃ মাস্কোভাইট ও বাইওটাইট।

36. অভ্র উৎপাদনে ভারতের কোন রাজ্য প্রথম স্থান অধিকার করে?
উত্তরঃ বিহার।

37. পৃথিবীর শ্রেষ্ঠ অভ্র উৎপাদক দেশটির নাম কী?
উত্তরঃ ভারত।

38. অপ্রচলিত শক্তির উৎস বলতে কী বোঝ?
উত্তরঃ বিদ্যুৎ উৎপাদনের জন্য যেসব শক্তির উৎস কম ব্যবহৃত হয় সেগুলিকে অপ্রচলিত শক্তির উৎস বলে। যেমন – সৌরশক্তি, বায়ুশক্তি, ভূতাপশক্তি।

39. পারমাণবিক শক্তি বলতে কী বোঝ?
উত্তরঃ ইউরেনিয়াম, থোরিয়াম প্রভৃতি তেজস্ক্রিয় পদার্থের সাহায্যে যে বিদ্যুৎশক্তি উৎপাদন করা হয় তাকে পারমাণবিক শক্তি বলে।

40. ভারতে সর্বপ্রথম কবে পারমাণবিক বিস্ফোরণ ঘটিয়েছে?
উত্তরঃ ১৯৭৪ সালে।

41. ভাবা অ্যাটমিক রিসার্চ ইনস্টিউট কোথায় অবস্থিত?
উত্তরঃ মুম্বাই-এর ট্রম্বেতে।

42. ভারতের বৃহত্তম পারমাণবিক বিদ্যুতকেন্দ্র কোথায় অবস্থিত?
উত্তরঃ চেন্নাই-এর কাছে অবস্থিত কালপক্কমে।

43. তরল সোনা কী?
উত্তরঃ পেট্রোলিয়ামের গুরুত্ব অন্ত্যন্ত বেশি হওয়ার জন্য একে তরল সোনা বলে অভিহিত করা হয়।

44. অভ্র কোন শিল্পে ব্যবহৃত হয়?
উত্তরঃ বিদ্যুৎশিল্পে।

45. অপ্রচলিত শক্তির প্রধান উৎস কী?
উত্তরঃ সৌরশক্তি।

46. ভারতের পূর্ব –উপকূলে অবস্থিত একটি খনিজ তেল শোধনাগারের নাম লেখ।
উত্তরঃ বিশাখাপত্তনম ও হলদিয়া।

47. বক্সাইটের প্রধান ব্যবহার কী?
উত্তরঃ অ্যালুমিনিয়াম তৈরিতে ব্যবহৃত হয়।

সৌজন্যে:- ভূগোল শিক্ষা    
www.BhugolShiksha.com