Madhyamik Physical Science
Madhyamik Physical Science

Madhyamik Physical Science Suggestion

মাধ্যমিক ভৌতবিজ্ঞান সাজেশন

Madhyamik Physical Science Suggestion (মাধ্যমিক ভৌতবিজ্ঞান সাজেশন – চলতড়িৎ (অধ্যায়-৬) প্রশ্ন উত্তর নিচে দেওয়া হলো। এই Madhyamik Physical Science Suggestion (মাধ্যমিক  ভৌতবিজ্ঞান সাজেশন) – চলতড়িৎ (অধ্যায়-৬) MCQ, সংক্ষিপ্ত, অতিসংক্ষিপ্ত এবং রোচনাধর্মী প্রশ্ন উত্তর  গুলি আগামী West Bengal Madhyamik Physical Science Examination – পশ্চিমবঙ্গ মাধ্যমিক ভৌতবিজ্ঞান সালের পরীক্ষার জন্য খুব ইম্পর্টেন্ট। আপনারা যারা মাধ্যমিক দশম শ্রেণীর ভৌতবিজ্ঞান পরীক্ষার সাজেশন খুঁজে চলেছেন, তারা নিচে দেওয়া প্রশ্নপত্র ভালো করে পড়তে পারেন। এই পরীক্ষা তে কোশ্চেন গুলো আসার সম্ভাবনা খুব বেশি।

চলতড়িৎ (অধ্যায়-৬) MCQ, সংক্ষিপ্ত, অতি সংক্ষিপ্ত এবং রচনাধর্মী প্রশ্ন উত্তর | Madhyamik Physical Science Suggestion – মাধ্যমিক ভৌতবিজ্ঞান সাজেশন 

বহুবিকল্পভিত্তিক প্রশ্নোত্তর : (মান – 1) Madhyamik Physical Science Suggestion – চলতড়িৎ (অধ্যায়-৬) প্রশ্নউত্তর – মাধ্যমিক ভৌতবিজ্ঞান সাজেশন

  1. ফ্লেমিং-এর বামহস্ত নিয়মে তৰ্জনী – a. তড়িৎপ্রবাহের দিক নির্দেশ করে b. চৌম্বকক্ষেত্রের দিক নির্দেশ করে c. পরিবাহীর গতির অভিমুখ নির্দেশ করে d. এদের সবগুলিই

উত্তরঃ[b] চৌম্বকক্ষেত্রের দিক নির্দেশ করে

  1. পরিবাহীর মধ্য দিয়ে তড়িৎ পরিবহণে অংশগ্রহণ করে – a. নিউট্রন b. প্রোটন c. ইলেকট্রন d. কোনোটিই নয়

উত্তরঃ[c] ইলেকট্রন

  1. তড়িৎ কোশের বিভবপার্থক্যের EMFএর মানের চেয়ে – a. বেশি  b. কম c. সমান d. কোনোটিই নয়

উত্তরঃ[b] কম

  1. ওহমের সূত্র মেনে চলে – a. অর্ধপরিবাহী b. ডায়োড  c. ট্রায়োডd. ধাতব পরিবাহী

উত্তরঃ[d] ধাতব পরিবাহী

  1. রোধের মাত্রা হল – a. [ML2T-3A-2] b. [ML2T-2A-3] c. [ML2T-3A-2]  d. [ ML2T-3A-3]

উত্তরঃ a. [ML2T-3A-2]

  1. পরিবাহীর রোধ উষ্ণতার – a. সমানুপাতিক b.  ব্যস্তানুপাতিক c. বর্গের ব্যস্তানুপাতিক d. বর্গের সমানুপাতিক

উত্তরঃ[a] সমানুপাতিক

  1. একটি নির্দিষ্ট পরিবাহীতে প্রবাহমাত্রা পূর্বের দ্বিগুণ সময় ধরে পাঠালে পরিবাহীতে উৎপন্ন তাপ হবে – a. চারগুণ b.  দ্বিগুণ c. তিনগুণ  d. একই

উত্তরঃ[b] দ্বিগুণ

  1. সমান দৈর্ঘ্যের একটি মোটা ও একটি সরু তামার তারের মধ্য দিয়ে একই প্রবাহমাত্রা একই সময় ধরে পাঠালে বেশি গরম হবে – a. সরু তারটি b. মোটা তারটি c. সমানভাবে সরু ও মোটা তার d. কখনওসরুতারটিকখনও মোটাতারটি

উত্তরঃ[a] সরু তারটি

শূন্যস্থান পূরণ করো: (মান – 1) Madhyamik Physical Science Suggestion – চলতড়িৎ (অধ্যায়-৬) প্রশ্নউত্তর – মাধ্যমিক ভৌতবিজ্ঞান সাজেশন

  1. কুলম্ব =________  সেকেন্ড।

উত্তরঃ[অ্যাম্পিয়ার]

  1. 1 ওয়াট-ঘণ্টা =________ জুল।

উত্তরঃ[3600]

  1. 1 emu________ A ।

উত্তরঃ[10]

  1. তড়িৎ চালক বল হল________  কারণ।

উত্তরঃ[বিভব প্রভেদের]

  1. ফিউজ তার________ রোদ, এবং ________  গলনাঙ্ক বিশিষ্ট হয়।

উত্তরঃ[ক্রোমিয়াম]

  1. ক্ষেত্রফল বৃদ্ধি পেলে পরিবাহীর রোধ________  পায়।

উত্তরঃ[হ্রাস]

সত্য বা মিথ্যা নির্বাচন করো: (মান – 1) Madhyamik Physical Science Suggestion – চলতড়িৎ (অধ্যায়-৬) প্রশ্নউত্তর – মাধ্যমিক ভৌতবিজ্ঞান সাজেশন

  1. অপরিবাহীকে ওহমীয় পরিবাহীও বলা হয়।          [F]
  2. সিলিকনের রোধাঙ্ক তাপমাত্রা বৃদ্ধির সঙ্গে হ্রাস পায়।         [T]
  3. পরিবাহিতাঙ্ককে   দ্বারা প্রকাশ করা হয়।   [T]
  4. LED -র থেকে CFL -এ শক্তির অপচয় কম হয়।        [F]
  5. 1C = 3 x 10 esu । [T]

অতি সংক্ষিপ্ত প্রশ্নোত্তর: (মান – 1) Madhyamik Physical Science Suggestion – চলতড়িৎ (অধ্যায়-৬) প্রশ্নউত্তর – মাধ্যমিক ভৌতবিজ্ঞান সাজেশন

  1. তড়িৎ কয় রকমের ও কী কী ?

উত্তরঃ তড়িৎ দুই ধরনের, যথা – (i) থিরতড়িৎ ও (ii) চলতড়িৎ

  1. সিজিএস পদ্ধতিতে আধানের একক কী ?

উত্তরঃ সিজিএস পদ্ধতিতে আধানের একক esu বা স্ট্যাটকুলম।

  1. কলম্ব ও esu এর মধ্যে সম্পর্ক কী ?

উত্তরঃ 1 কুলম্ব = 3  109 esu

  1. আধানের ব্যবহারিক একক লেখো ।

উত্তরঃ আধানের ব্যবহারিক একক কুলম্ব।

  1. তড়িৎবিভব স্কেলার রাশি না ভেক্টর রাশি?

উত্তরঃ তড়িংবিভব স্কেলার রাশি।

  1. সিজিএস পদ্ধতিতে তড়িৎবিভবের একক কী ?

উত্তরঃ সিজিএস পদ্ধতিতে তড়িৎবিভবের একক esu বা স্ট্যাটভোল্ট।

  1. তড়িচালক বলের ব্যবহারিক একক কী ?

উত্তরঃ তড়িচালক বলের ব্যবহারিক একক ভোল্ট।

  1. পৃথিবীর বিভব কত ?

উত্তরঃ পৃথিবীর বিভব শূন্য।

  1. তড়িৎ কোশে কোন শক্তি কোন শক্তিতে রূপান্তরিত হয় ?

উত্তরঃ তড়িৎ কোশে রাসায়নিক শক্তি তড়িৎ শক্তিতে রূপান্তরিত হয়।

  1. তড়িৎ প্রবাহমাত্রার ব্যবহারিক একক কী?

উত্তরঃ তড়িৎ প্রবাহমাত্রার ব্যবহারিক একক অ্যাম্পিয়ার।

  1. 1 emu = কত আাম্পিয়ার ?

উত্তরঃ 1 emu = 10 অ্যাম্পিয়ার

  1. রোধের ব্যবহারিক একক কী ?

উত্তরঃ রোধের ব্যবহারিক একক ওহম।

  1. পরিবাহিতা কী ?

উত্তরঃ রোধের অন্যোন্যক রাশি হল পরিবাহিতা।

  1. রোধের মাত্রা কী ?

উত্তরঃ রোধের মাত্রা =  [ML2T-3A-1]

  1. সিজিএস পদ্ধতিতে রোধাঙ্কের একক কী ?

উত্তরঃ  সিজিএস পদ্ধতিতে রোধাঙ্কের একক ওহম-সেমি।

  1. এমন একটি ধাতুর নাম করো যার উপর আলো পড়লে রোধ কমেযায়।

উত্তরঃ সেলেনিয়াম ধাতুর উপর আলো পড়লে রোধ কমে যায়।

  1. r1 ও r2 রোধকে সমান্তরাল সমবায়ে যুক্ত করলে তুল্য রোধ কত হবে ?

উত্তরঃ r1 ও r2 রোধকে সমান্তরাল সমবায়ে যুক্ত করলে তুল্য রোধ R হবে,  বা, R  ।

  1. নাইক্রোম কী ?

উত্তরঃ নাইক্রোম হল আয়রন, ক্রোমিয়াম ও নিকেলের সংকর ধাতু।

  1. ফিউজ তারের বৈশিষ্ট্য কী ?

উত্তরঃ  ফিউজ তারের বৈশিষ্ট্য হবে গলনাঙ্ক কম ও রোধাঙ্ক বেশি। 

  1. ওয়াট- ঘণ্টা কোন ভৌত রাশির একক ?

উত্তরঃ ওয়াট-ঘণ্টা তড়িৎ শক্তির একক।

21  কিলোওয়াট-ঘন্টা বা BOT দ্বারা কী পরিমাপ করা যায় ?

উত্তরঃ কিলোওয়াট-বা BOT দ্বারা তড়িৎশক্তি পরিমাপ করা যায়।

  1. নিউট্রাল তারের বর্ণ কী হয় ?

উত্তরঃ নিউট্রাল তারের বর্ণ হালকা নীল বর্ণ  হয়।

  1. লাইভ তার কী রঙের হয়?

উত্তরঃ লাইভ তার লাল বা বাদামী বর্ণের হয়।

সংক্ষিপ্ত প্রশ্নোত্তর: (মান – 2) Madhyamik Physical Science Suggestion – চলতড়িৎ (অধ্যায়-৬) প্রশ্নউত্তর – মাধ্যমিক ভৌতবিজ্ঞান সাজেশন

  1. পজিটিভ এবং নেগেটিভ তড়িৎ কীভাবে উৎপন্ন হয় ?

উত্তরঃ কোনো মৌলিক পদার্থের সুস্থির পরমাণুর মধ্যে ইলেকট্রন ও প্রোটনের সংখ্যা সমান। ইলেকট্রনগুলি নেগেটিভ বা ঋণাত্মক তড়িৎগ্রস্ত ও প্রোটনগুলি পজিটিভ বা ধনাত্মক তড়িৎগ্রস্ত কণা। ইলেকট্রনের হ্রাস-বৃদ্ধির দ্বারা কোনো পদার্থে তড়িৎ এর  প্রকৃতি নির্ধারিত হয়। যে পদার্থ থেকে ইলেকট্রন অপসারিত হবে সেটি ধনাত্মক বা  পজিটিভ তড়িৎগ্রস্ত এবং যে পদার্থটি ইলেকট্রনের আধিক্য ঘটবে সেটি ঋণাত্মক  বা নেগেটিভ তড়িৎগ্রস্ত হবে।

  1. উচ্চবিভব বলতে কী বোঝো ?

উত্তরঃ উচ্চবিভব: কোনো একটি নির্দিষ্ট ক্ষেত্রে প্রচুর পরিমাণ ধনাত্মক আধান উপস্থিত  থাকলে সেই ক্ষেত্রটি উচ্চবিভবে আছে বলা হয়।

  1. সিজিএস ও এসআই পদ্ধতিতে তড়িৎবিভবের একক কী

উত্তরঃ সিজিএস পদ্ধতিতে তড়িৎবিভবের একক esu বা স্যাটভোল্ট। এস আই পদ্ধতিতে তড়িৎ বিভবের একক ভোল্ট।

  1. দুটি বিন্দুর বিভবপার্থক্য 100 ভোল্ট বলতে কী বোঝো ?

উত্তরঃ দুটি বিন্দুর বিভবপার্থক্য 100 ভোস্ট বলতে বোঝায় এই যে, এক বিন্দু থেকে অপর

বিন্দুতে এক কুলম্ব ধনাত্মক তড়িদাধানকে নিয়ে যেতে 100 জুল কার্য করতে হয়।

  1. কোনো কোশের তড়িচালক বল বলতে কী বোঝো ?

উত্তরঃ তড়িৎচালক বল (EMF): যার প্রভাবে বা যে কারণে তড়িৎ বর্তনীর কোনো অংশে রাসায়নিক শক্তি বা অন্য কোনো শক্তি তড়িৎশক্তিতে রূপান্তরিত হয়ে বিভব পার্থক্যের সৃষ্টি করে, তাকে তড়িচালক বল ।

  1. ‘একটি কোশের তড়িচালক বল 1.5 ভোল্ট-এর অর্থ কী ?

উত্তরঃ কোনো কোশের তড়িচালক বল 1.5 ভোল্ট বলতে বোঝায় যে, কোশটির ধনাত্মক মেরু থেকে ঋণাত্মক মেরুতে 1 কুলম্ব তড়িদাধান নিয়ে যেতে 1.5 জুল কার্য করতে হয়।

  1. ‘তড়িৎ প্রবাহমাত্রা’ কাকে বলে ?

উত্তরঃ পরিবাহীর যে-কোনো  প্রথচ্ছেদের মধ্য দিয়ে প্রতি সেকেন্ড যে পরিমাণ ধনাত্মক আধান প্রবাহিত হয় তাকে ওই পরিবাহীর তড়িৎ প্রবাহমাত্রা বলে।

  1. তড়িৎ প্রবাহমাত্রার ব্যবহারিক এককের সংজ্ঞা দাও ।

উত্তরঃ তড়িৎ প্রবাহমাত্রার ব্যবহারিক একক অ্যাম্পিয়ার।

আাম্পিয়ার: কোনো পরিবাহীর যে-কোনো প্রস্থচ্ছেদের মধ্য দিয়ে প্রতি সেকেণ্ডে এক কুলম্ব তড়িৎ প্রবাহিত হলে ওই তড়িৎ প্রবাহমাত্রাকে এক অ্যাম্পিয়ার বলে।

  1. সমপ্রবাহের সংজ্ঞা দাও এর উৎস কী ?

উত্তরঃ সমগ্রবাহু : তড়িৎপ্রবাহ যদি সব সময় একই দিকে হয়, তবে সেই তড়িৎপ্রবাহকে সমপ্রবাহ বলে। এর উৎস তড়িৎ কোশ।

  1. ওহমের সূত্রটিকে লেখচিত্রের সাহায্যে প্রমাণ করো

উত্তরঃ ওহমের সূত্রটিকে লেখচিত্রে প্রকাশ করলে এটি একটি মূলবিন্দুগামী সরলরেখা হয়। অনুভূমিক অক্ষ বরাবর বিভব (V) ও উল্লম্ব অক্ষ বরাবর প্রবাহমাত্রা (I) নির্দেশ করে অঙ্কিত সরলরেখার নীতির অন্যোন্যক পরিবাহীটির রোধের মান নির্দেশ করে।

  1. পরিবাহীর রোধ পরিবাহীর উপাদান ও উষ্ণতা উপর কীভাবে নির্ভর করে ?

উত্তরঃ পরিবাহীর উপাদান ; পরিবাহীর উষ্ণতা দৈর্ঘ্য, প্রস্থচ্ছেদ অপরিবর্তিত রেখে যদি উপাদান পরিবর্তন করা হয় রোধও পরিবর্তিত হয়। যেমন— সমউষ্ণতা সমদৈর্ঘ্য ও সমপ্রস্থচ্ছেদের রুপার তারের রোধ তামার তারের রোধের চেয়ে কম।

  1. তামার রোধাক 1.78  106 ওহম-সেমি বলতে কী বোঝো ?

উত্তরঃ ‘তামার রোধাঙ্ক 1.78 x 10-6 ওহম-সেমি’ বলতে বোঝায় যে, নির্দিষ্ট তাপমাত্রায় এক সেন্টিমিটার বহুবিশিষ্ট একটি তামার ঘনকের দুটি বিপরীত তলের মাঝের রোধ 1.78 x 10-6 ওহম।

  1. দৈনন্দিন জীবনে ব্যবহৃত কয়েকটি পরিবাহী ও অন্তরকের উদাহরণ দাও।

উত্তরঃ দৈনন্দিন জীবনে ব্যবহৃত পরিবাহীগুলি হল— লোহা লোহার সংকর ধাতু, তামা সোনা ইত্যাদি। অন্তরকগুলি হল- কাচ, রবার, কাগজ, পিভিসি ইত্যাদি।

  1. উষ্ণতার সঙ্গেগ অতিপরিবাহীর রোধাকের পরিবর্তনের লেখচিত্র কীরূপ হবে ?

উত্তরঃ উষ্ণতা সঙ্গে অতিপরিবাহীর রোধাঙ্কের পরিবর্তনের লেখচিত্র দেখানো হল।

  1. একটি পরিবাহীতে তড়িপ্রবাহের ফলে যে তাপ উৎপন্ন হয় তা কীসের উপর নির্ভর করে?

উত্তরঃ পরিবাহীতে উৎপন্ন তাপ- (i)  পরিবাহীর তড়িৎ প্রমাহমাত্রা, (ii) পরিবাহীর রোধ (iii) তড়িৎপ্রবাহের সময়ের উপর নির্ভর করে।

  1. সমপ্ৰথচ্ছেদ বিশিষ্ট একটি লম্বা ও একটি ছোটো তামার তারের মধ্য দিয়ে একই সময় একই পরিমাণ তড়িৎ পাঠালে কোন তারটি বেশি উত্তপ্ত হবে ও কেন ?

উত্তরঃ সমপ্রথচ্ছেদ বিশিষ্ট একটি লম্বা ও একটি ছোটো তামার তারের মধ্য দিয়ে একই সময় একই পরিমাণ তড়িৎ পাঠালে লম্বা তারটি বেশি উত্তপ্ত হবে।

কারণ আমরা জানি,  =  অর্থাৎ একই উপাদান ও একই বিশিষ্ট তারের রোধ ওর দৈর্ঘ্যের সমানুপাতিক। লম্বা তারটির রোধ ছোটো তারটির রোধ অপেক্ষা বেশি হয়। আবার জুলের সূত্রানুযায়ী, পরিবাহীর মধ্য দিয়ে তড়িৎ প্রবাহমাত্রা ও তড়িৎপ্রবাহের সময় অপরিবর্তিত থাকলে, পরিবাহীতে উৎপন্ন তাপ রোধের সমানুপাতিক হয়। অর্থাৎ, পরিবাহীতে উৎপন্ন তাপ রোধের সমানুপাতিক হয়। অর্থাৎ, পরিবাহীর রোধ বেশি হলে ওতে উৎপন্ন তাপের পরিমাণ বেশি হবে। লম্বা তারটির রোধ বেশি হওয়ায় লম্বা তারটি বেশি উত্তপ্ত হবে।

  1. ইলেকট্রিক হিটারে নাইক্রোম তার ব্যবহার করা হয় কেন?

উত্তরঃ ইলেকট্রিক হিটারে নাইক্রোম তার ব্যবহারের কারণ

(i) নাইক্রোম হল নিকেল (Ni), ক্রোমিয়াম (Cr) ও লোহার (Fe) সংকর ধাতু। এর গলনাঙ্ক রোধাঙ্ক খুব বেশি হয়। রোধাঙ্ক বেশি হওয়ায় রোধও বেশি। আবার রোধ বেশি হওয়ায় জুলের সূত্রানুযায়ী, তড়িৎপ্রবাহের ফলে তারটিতে বেশি তাপ উৎপন্ন হয়। আর গলনাঙ্ক বেশি হওয়ায় উচ্চ তাপমাত্রাতেও তারটি গলে যায় না।

(ii) উচ্চ উষ্ণতাতেও নাইক্রোম বায়ুর সংস্পর্শে এলে বায়ুর অক্সিজেন দ্বারা জারিত হয় না।

  1. ফিউজ তারের বৈশিষ্ট্য কী? এটি কেন ব্যবহার করা হয় ?

উত্তরঃ বৈশিষ্ট্য : ফিউজ তারের রোধাঙ্ক উচ্চ মানের এবং গলনাঙ্ক কম।

ব্যবহার : অতিরিক্ত তড়িৎপ্রবাহজনিত ক্ষতি থেকে ফিউজ তার বাড়ির বৈদ্যুতিক লাইন ও লাইনের সঙ্গে যুক্ত যন্ত্রপাতিকে রক্ষা করে।

  1. শর্ট সার্কিট’ বলতে কী বোঝো ?

উত্তরঃ  ‘শর্ট সার্কিট’ : কোনো কারণে কোনো তড়িৎ বর্তনীর লাইন দুটির মধ্যে সরাসরি সংযোগ ঘটলে বর্তনীর রোধ প্রায় শূন্য হয়। একে শর্ট সার্কিট বলা হয়। শর্ট সার্কিট হলে বর্তনীতে প্রবাহমাত্রা খুব বেড়ে যায়। ফলে লাইনে প্রচুর তাপ উৎপন্ন হয়ে আগুন ধরে যাওয়ার সম্ভাবনা থাকে।

  1. তড়িৎশক্তির এসআই একক কী? এর সংজ্ঞা দাও।

উত্তরঃ তড়িৎ শক্তির এসআই একক জুল।

জুলঃ  1 কুলম্ব পরিমাণ তড়িৎ আধানকে 1 ভোস্ট বিভবপার্থক্য অতিক্রম করতে যে কার্য করতে হয় তাকে 1 জুল বলে।

  1. তড়িৎ প্রবাহমাত্রা (I), রোধ (R) ও তড়িৎ ক্ষমতা (P) এদের মধ্যে সম্পর্ক নির্ণয় করো।

উত্তরঃ তড়িৎ ক্ষমতা   = 

=  উত্তরঃ 

আবার ওহমের সূত্রনুযায়ী,  বা  

  1. CFL ও LED -র পুরো নাম কী ?

উত্তরঃ CFL-এর পুরো নাম Compact Fluorescent Lamp.

LED -এর পুরো নাম Light Emitting Diode.

  1. দক্ষিণ হস্ত মুষ্টি সূত্রটি বিবৃত করো।

উত্তরঃ দক্ষিণ হস্ত মুষ্টি সূত্র: একটি তড়িৎবাহী তারকে ডান হাত দিয়ে যদি এমনভাবে মুষ্টিবদ্ধ করা হয় যাতে বুড়ো আঙুল তড়িৎপ্রবাহের অভিমুখ নির্দেশ করে তবে অন্য আগুলগুলির অগ্রভাগ উৎপন্ন চৌম্বকক্ষেত্রের বলরেখার অৰ্থাৎ চৌম্বকক্ষেত্রের অভিমুখ নির্দেশ করবে।

  1. তড়িৎপ্রবাহের উপর চুম্বকের ক্রিয়া বলতে কী বোঝো ?

উত্তরঃ তড়িৎপ্রবাহের উপর চুম্বকের ক্ৰিয়া : তড়িৎপ্রবাহ যেমন চুম্বকের উপর ক্রিয়া করে চুম্বক মেরুকে বিক্ষিপ্ত করার সময় ওর ওপর একটি বল প্রয়োগ করে। এই কারণে পরিবাহী নিজ অবস্থান থেকে বিক্ষিপ্ত হয়। একেই তড়িৎপ্রবাহের উপর। চুম্বকের ক্রিয়া বলে।

  1. বার্লোরচন্দ্র পরিবর্তী প্রবাহে কাজ করে না কেন?

উত্তরঃ বার্লোরচক্র পরিবর্তী প্রবাহে (AC)কাজ করে না। কারণ বালোরচক্র তড়িৎপ্রবাহের উপর চুম্বকের ক্রিয়া’ এই নীতির উপর প্রতিষ্ঠিত। চুম্বকক্ষেত্রের অভিমুখ অপরিবর্তিত রেখে তড়িৎপ্রবাহের অভিমুখ বিপরীত দিকে হলে চক্রের ঘূর্ণনের অভিমুখ বিপরীত হবে। পরিববর্তী প্রবাহে (AC)তড়িৎ প্রবাহের অভিমুখ প্রতি মুহুর্তে পরিবর্তিত হয়। এক্ষেত্রে চক্রটি একবার একদিকে ও পরে বিপরীত দিকে ঘুরতে চেষ্টা করবে। ফলে চক্রের ঘূর্ণন হবে না। কেবলমাত্র সমপ্রবাহে (DC)-তে বালোরচক্র কাজ করবে।

26.বৈদ্যুতিক মোটরের শক্তি কী কী উপায়ে বাড়ানো যায়?

উত্তরঃ বৈদ্যুতিক মোটরের শক্তি বাড়ানোর উপায় :

(i) আর্মেচারের মধ্যে তড়িৎপ্রবাহের মাত্রা বাড়িয়ে ।

(ii)  আর্মেচারের তারের পাকসংখ্যা বাড়িয়ে ।

(iii)  ক্ষেত্র চুম্বকের চৌম্বকশক্তি বাড়িয়ে ।

  1. লেঞ্জের সূত্র বিবৃত করো।

উত্তরঃ লেঞ্জের সূত্র : তড়িৎচুম্বকীয় আবেশের ক্ষেত্রে আবিষ্ট তড়িৎপ্রবাহের অভিমুখ এমন হয় যে, যে কারণে আবিষ্ট তড়িৎপ্রবাহের সৃষ্টি হয়, আবিষ্ট প্রবাহমাত্রা সর্বদা সেই কারণকে বাধা দেয়।

  1. পরিবর্তীপ্রবাহ কী? পরিবতী প্রবাহের ক্ষেত্রে প্রবাহমাত্রা সময়-লেখচিত্রটি কীরূপ ?

উত্তরঃ পরিবর্তী প্রবাহ: যে তড়িৎ প্রবাহমাত্রা নির্দিষ্ট সময় অন্তর অভিমুখ পরিবর্তন করে এবং সময়ের সঙ্গে সঙ্গে পর্যায়ক্রমে মান পরিবর্তন করে তাকে পরিবর্তী প্রবাহ বলে।

  1. খ্রিপিন প্ল্যাগ কী? এটি কোন কাজে ব্যবহার করা হয়?

উত্তরঃ থ্রি-পিন প্ল্যাগ : যে প্ল্যাগে তিনটি পিনের ব্যবস্থা থাকে তাকে প্লি-পিন প্ল্যাগ বলে। ওপরের বড়ো ছিদ্রটি আর্থ কানেকশনের জন্য ডান দিকের ছিদ্রটি লাইভ তারের এবং বামদিকের ছিদ্রটি নিউট্রাল তারের কানেকশনের জন্য।

  1. আর্থ তারের বৈশিষ্ট্য কী ?

উত্তরঃ আর্থ তারের বৈশিষ্ট্য : তারের রোধ কম হওয়া উচিত। কারণ তারের মধ্য দিয়ে নির্দিষ্ট সীমার বেশি তড়িৎপ্রবাহ হলে সার্কিটের ফিউজ তারটি পুড়ে গিয়ে লাইনের সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে  দেয়।

  1. থ্রি -পিন প্লাগ টপের সঙ্গে লাগানো তার তিনটির অন্তরক আবরণের রং কী কী ?

উত্তরঃ বৈদ্যুতিক লাইনে তিনটি অন্তরিত তামার তার ব্যবহৃত হয়। তারগুলিকে চেনার জন্য তারের আবরণের তিনটি আলাদা রং নির্দিষ্ট করা হয়। একে তারের বর্ণ সংকেত বলে। নতুন আন্তর্জাতিক নিয়মানুসারে লাইভ তারকে বাদামি, নিউট্রাল তারকে হালকা নীল ও আর্থ তারকে সবুজ বা হলুদ বর্ণের করা হয়।

দীর্ঘ প্রশ্নোত্তর : (মান – 3) Madhyamik Physical Science Suggestion – চলতড়িৎ (অধ্যায়-৬) প্রশ্নউত্তর – মাধ্যমিক ভৌতবিজ্ঞান সাজেশন

  1. কুলম্বের সূত্রের গাণিতিক রূপটি লেখো।

উত্তরঃ মনে করি, দুটি আধান  ও  পরস্পর থেকে  দূরত্বে অবস্থিত। এদের মধ্যে কার্যকর বলের মান F হলে, কুলম্বের সূত্রাণুযায়ী,   এবং   

 বা,  (k একটি ধ্রুবক )

  1. ওহমের সূত্রটি লেখো ও ব্যাখ্যা করো।

উত্তরঃ ওহমের সূত্র : উষ্ণতা, উপাদান এবং অন্যান্য ভৌত অবথা অপরিবর্তিত থাকলে, কোনো পরিবাহীর মধ্য দিয়ে তড়িৎ প্রবাহমাত্রা ওই পরিবাহীর দুই প্রান্তের বিভবপার্থক্যের সমানুপাতিক হবে।

ব্যাখ্যা : মনে করি, AB একটি পরিবাহী। পরিবাহীর A প্রান্তের বিভব VA এবং B প্রান্তের বিভব VB মনে করি,

VA > VB ।  

সুতরাং, পরিবাহীতে A প্রান্ত থেকে B প্রান্তের দিকে তড়িৎপ্রবাহ হবে, তড়িৎ প্রবাহমাত্রা  হলে, ওহমের সূত্রাণুযায়ী, (উষ্ণতা উপাদান ও অন্যান্য ভৌত অবস্থা অপরিবর্তিত থাকে)।

বা, (যদি, ধরা হয়)। বা, পরিবাহীর রোধ)।

  1. কোশের অভ্যন্তরীণ রোধ কোন কোন বিষয়ের উপর নির্ভর করে ?

উত্তরঃ কোশের অভ্যন্তরীণ রোধ নিম্নলিখিত বিষয়গুলির উপর নির্ভর করে।

(i)  তড়িদ্দারদ্বয়ের মধ্যবর্তী দূরত্বের উপর : তড়িদ্দারদ্বয়ের মধ্যবর্তী দূরত্ব বাড়ালে অভ্যন্তরীণ রোধ বৃদ্ধি পায়।

(ii) সক্রিয় তরলের মধ্যে তড়িদ্দারদ্বয়ের নিমজ্জিত অংশের ক্ষেত্রফলের  উপরঃ নিমজ্জিত অংশের ক্ষেত্রফল বৃদ্ধি পেলে অভ্যন্তরীণ রোধ হ্রাস পায়।

(iii)  কোশ মধ্যস্থ সক্রিয় তরলের প্রকৃতির উপরঃ সক্রিয় তরলের পরিবাহিতা বৃদ্ধি পেলে কোশের অভ্যন্তরীণ রোধের মান হ্রাস পায়।

  1. পরিবাহীর রোধ, প্রথচ্ছেদ ও দৈর্ঘ্যের মধ্যে সম্পর্ক নির্ণয় করো।

উত্তরঃ মনে করি, কোনো পরিবাহীর দৈর্ঘ্য  প্রথচ্ছেদ রোধ । পরিবাহীর উপাদান, উষ্ণতা  অপরিবর্তিত থাকলে  ; যখন প্রথচ্ছেদ  স্থির।

  ; যখন দৈৰ্ঘ্য থির ।

সুতরাং,  ; যখন এবং  উভয়েই পরিবর্তিত।

বা  (যেখানে =  ধুবক)।

  1. একটি ধাতব তারের ভিতর দিয়ে তড়িৎ প্রবাহিত হচ্ছে। তারের রোধ ও তড়িৎ প্রবাহের সময় অপরিবর্তিত রেখে তারের দুই প্রান্তের বিভবপ্রভেদ দ্বিগুণ করা হলে তারে উৎপন্ন তাপের কী পরিবর্তন হবে?

উত্তরঃ জুলের সূত্রানুযায়ী, পরিবাহীতে উৎপন্ন তাপ  ক্যালোরি।

ওহমের সূত্রানুযায়ী,  বা,   ∴   

রোধ (R) ও তড়িৎপ্রবাহের সময় (t) অপরিবর্তিত থাকলে পরিবাহীতে উৎপন্ন তাপ (H) পরিবাহীর দুই প্রান্তের বিভবপার্থক্যের বর্গের সমানুপাতিক হয়। সুতরাং, পরিবাহীতে উৎপন্ন তাপ প্রথম ক্ষেত্রে উৎপন্ন তাপের  বা  গুণ হবে।

  1. কিলোওয়াট-ঘন্টা (KWh) বা BOT একক কাকে বলে?

উত্তরঃ কিলোওয়াট-ঘণ্টা (KWh) বা BOT : এক কিলোওয়াট ক্ষমতা সম্পন্ন যন্ত্র এক ঘন্টা চললে যে তড়িৎশক্তি ব্যয় হয়, তাকে 1 কিলোওয়াট-ঘন্টা (KWh) বা 1 বোর্ড অব ট্রেড ইউনিট বা BOT একক বলে।

কিলোওয়াট – ঘন্টা (KWh)। 

Madhyamik Suggestion 2023 | মাধ্যমিক সাজেশন ২০২৩

আরোও দেখুন:-

Madhyamik Bengali Suggestion 2023 Click here

আরোও দেখুন:-

Madhyamik English Suggestion 2023 Click here

আরোও দেখুন:-

Madhyamik History Suggestion 2023 Click here

আরোও দেখুন:-

Madhyamik Geography Suggestion 2023 Click here

আরোও দেখুন:-

Madhyamik Mathematics Suggestion 2023 Click here

আরোও দেখুন:-

Madhyamik Physical Science Suggestion 2023 Click here

আরোও দেখুন:-

Madhyamik Life Science Suggestion 2023 Click here

আরোও দেখুন:-

Madhyamik Suggestion 2023 Click here

Info : Madhyamik Physical Science Suggestion | West Bengal WBBSE Madhyamik Physical Science Qustion and Answer Suggestion

        আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ সময় করে আমাদের এই ” Madhyamik Physical Science Suggestion – চলতড়িৎ (অধ্যায়-৬) প্রশ্ন উত্তর – মাধ্যমিক ভৌতবিজ্ঞান সাজেশন ” পােস্টটি পড়ার জন্য। এই ভাবেই BhugolShiksha.com ওয়েবসাইটের পাশে থাকুন। যেকোনো প্ৰশ্ন উত্তর জানতে এই ওয়েবসাইট টি ফলাে করুন এবং নিজেকে  তথ্য সমৃদ্ধ করে তুলুন , ধন্যবাদ।

Download Our Android App

Subscribe Our YouTube Channel

Join Our Telegram Channel