একনজরে ভারতের বিশ্ব ঐতিহ্য স্থল – World Heritage Sites in India | Bhugol Shiksha

162


আজ ১৮ ই এপ্রিল, বিশ্ব ঐতিহ্য দিবস (World Heritage Day)। ইহা ‘International Day For Monuments and Sites’ নামেও পরিচিত। ১৯৮২ সালের ১৮ ই এপ্রিল  International Council on Monuments and Sites (ICOMOS) ‘বিশ্ব ঐতিহ্য দিবস’ এর প্রস্তাব তুলে ধরে। ১৯৮৩ সালের নভেম্বর মাসের সাধারণ সভাতে ইউনেস্কো তা অনুমোদন করে। বিশ্ব ঐতিহ্য দিবস পালনের উদ্দেশ্য হল — মানব সভ্যতার সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের বৈচিত্র্য সম্পর্কে সচেতনতা বৃদ্ধি ; ঐতিহ্যসমূহের বিপন্নতা সম্পর্কে সচেতনতা বৃদ্ধি এবং ঐতিহ্যগুলি সংরক্ষণের প্রচেষ্টা। এবছর অর্থাৎ ২০১৯ সালে বিশ্ব ঐতিহ্য দিবসের থিম হল — ‘গ্রামীণ ভূদৃশ্য’ (Rural Landscapes)।


ভারতের বিশ্ব ঐতিহ্য স্থল – World Heritage Sites in India

আজকের দিনে আসুন একনজরে দেখা যাক, ইউনেস্কো স্বীকৃত ভারতের বিশ্ব ঐতিহ্য স্থল বা হেরিটেজ সাইটগুলি —

বর্তমানে ভারতে ইউনেস্কো স্বীকৃত বিশ্ব ঐতিহ্য স্থল (World Heritage Site) এর সংখ্যা হল ৩৭ টি। এর মধ্যে ৭ টি প্রাকৃতিক (Natural), ২৯ টি সাংস্কৃতিক (Cultural) এবং ১ টি মিশ্র (Mixed) শ্রেণীভুক্ত।

★ ভারতের প্রাকৃতিক বিশ্ব ঐতিহ্য স্থলঃ-
(১) কাজিরাঙা জাতীয় উদ্যান (আসাম ; ১৯৮৫)
(২) কেওলাদেও জাতীয় উদ্যান (রাজস্থান ; ১৯৮৫)
(৩) মানস বন্যপ্রাণ অভয়ারণ্য (আসাম ; ১৯৮৫)
(৪) সুন্দরবন জাতীয় উদ্যান (পশ্চিমবঙ্গ ; ১৯৮৭)
(৫) নন্দাদেবী এবং ভ্যালি অফ ফ্লাওয়ার্স জাতীয় উদ্যান (উত্তরাখন্ড ; ১৯৮৮ এবং ২০০৫)
(৬) পশ্চিমঘাট পর্বত (মহারাষ্ট্র, কর্ণাটক, কেরালা, তামিলনাড়ু ; ২০১২)
(৭) গ্রেট হিমালয়ান জাতীয় উদ্যান (হিমাচলপ্রদেশ ; ২০১৪)

★ ভারতের বিশ্ব সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য স্থলঃ-
(১) আগ্রা দুর্গ (উত্তরপ্রদেশ ; ১৯৮৩)
(২) অজন্তা গুহা (মহারাষ্ট্র ; ১৯৮৩)
(৩) ইলোরা গুহা (মহারাষ্ট্র ; ১৯৮৩)
(৪) তাজমহল (উত্তরপ্রদেশ ; ১৯৮৩)
(৫) মহাবলীপুরমের স্মারকসমূহ (তামিলনাড়ু ; ১৯৮৪)
(৬) কোনার্ক সূর্য মন্দির (ওড়িশা ; ১৯৮৪)
(৭) ফতেপুর সিক্রি (উত্তরপ্রদেশ ; ১৯৮৬)
(৮) হাম্পির স্মারকসমূহ (কর্ণাটক ; ১৯৮৬)
(৯) খাজুরাহোর স্মারকসমূহ (মধ্যপ্রদেশ ; ১৯৮৬)
(১০) গোয়ার চার্চ ও আশ্রম (কনভেন্ট) (গোয়া ; ১৯৮৬)
(১১) এলিফ্যান্টা গুহা (মহারাষ্ট্র ; ১৯৮৭)
(১২) পত্তদকল স্মারকসমূহ (কর্ণাটক ; ১৯৮৭)
(১৩) মহান চোল মন্দিরসমূহ (তামিলনাড়ু ; ১৯৮৭)
(১৪) সাঁচী বৌদ্ধস্তূপ (মধ্যপ্রদেশ ; ১৯৮৯)
(১৫) হুমায়ুনের সমাধি (দিল্লি ; ১৯৯৩)
(১৬) কুতুব মিনার ও তৎসংলগ্ন স্মারকসমূহ (দিল্লি ; ১৯৯৩)
(১৭) ভারতের পার্বত্য রেলপথ — দার্জিলিং হিমালয়ান রেলপথ (পশ্চিমবঙ্গ ; ১৯৯৯) ; নীলগিরি পার্বত্য রেলপথ (তামিলনাড়ু ; ২০০৫) ; কালকা-সিমলা রেলপথ (হিমাচলপ্রদেশ ; ২০০৮)
(১৮) বোধগয়ার মহাবোধি মন্দির চত্বর (বিহার ; ২০০২)
(১৯) ভীমবেটকার প্রস্তর আশ্রয়স্থলসমূহ (মধ্যপ্রদেশ ; ২০০৩)
(২০) মুম্বাই-এর ছত্রপতি শিবাজী টার্মিনাস (মহারাষ্ট্র ; ২০০৪)
(২১) চম্পানের-পাবাগড় প্রত্নতাত্ত্বিক অঞ্চল (গুজরাট ; ২০০৪)
(২২) দিল্লির লালকেল্লা (দিল্লি ; ২০০৭)
(২৩) জয়পুরের যন্তর মন্তর (রাজস্থান ; ২০১০)
(২৪) রাজস্থানের পার্বত্য দূর্গসমূহ — চিতোরগড়, কুম্ভলগড়, রণথম্ভোর, অম্বর, জয়সলমীর, গাগরোন (রাজস্থান ; ২০১৩)
(২৫) রাণী কি বাব (গুজরাট ; ২০১৪)
(২৬) নালন্দা মহাবিহার প্রত্নতাত্ত্বিক অঞ্চল (বিহার ; ২০১৬)
(২৭) লি কার্বুজিয়ের স্থাপত্যকলা ও বাস্তুশিল্প (চন্ডীগড় ; ২০১৬)
(২৮) আমেদাবাদের ঐতিহাসিক শহর (গুজরাট ; ২০১৭)
(২৯) মুম্বাই-এর ভিক্টোরিয়ান গোথিক ও আর্ট ডেকো স্থাপত্য সমাহার (মহারাষ্ট্র ; ২০১৮)

★ ভারতের মিশ্র বিশ্ব ঐতিহ্য স্থলঃ-
(১) কাঞ্চনজঙ্ঘা জাতীয় উদ্যান (সিকিম ; ২০১৬)

তথ্যসূত্রঃ- ইউনেস্কো


© ভূগোল শিক্ষা – Bhugol Shiksha




       আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ সময় করে আমাদের পােস্টটি পড়ার জন্য ।  এই ভাবেই ভূগোল শিক্ষা – Bhugol Shiksha এর পাশে থাকুন, ভূগোল বিষয়ে যেকোনো প্ৰশ্ন উত্তর জানতে  এই আমাদের ওয়েবসাইট টি ফলাে করুন এবং নিজেকে ভৌগােলিক তথ্য সমৃদ্ধ করে তুলুন, ধন্যবাদ।

নিচের শেয়ার বাটনে ক্লিক করে শেয়ার করেন বন্ধুদের মাঝে