রাজা রামমোহন রায় জীবনী – Ram Mohan Roy Biography in Bengali

38
রাজা রামমোহন রায় জীবনী - Ram Mohan Roy Biography in Bengali
রাজা রামমোহন রায় জীবনী - Ram Mohan Roy Biography in Bengali

রাজা রামমোহন রায় জীবনী – Ram Mohan Roy Biography in Bengali

রাজা রামমোহন রায় জীবনী – Ram Mohan Roy Biography in Bengali : রাজা রামমােহন রায় ভারতেনবযুগের প্রবর্তক স্বদেশ ভারতবর্ষ এবং স্বজাতির কল্যাণে তার অবদান অবিস্মরণীয়। রাজা রামমোহন রায়ের (Ram Mohan Roy) জীবনাদর্শ একদা ভারতবর্ষের স্বাধীনতা সংগ্রামে জাতিকেঅপরিসীম অনুপ্রেরণা জুগিয়েছিলাে। রাজা রামমোহন রায়কে (Ram Mohan Roy) মহান পুরুষ হিসাবে বিবেচনা করা হয় । প্রতিভা , পান্ডিত্য , মনীষা ও কর্মকুশলতার প্রতীক রামমােহন রায় ছিলেন নবীন ভারতের নবজাগরণের পথিকৃৎ ।

 ভারতের নব যুগের প্রবর্তক রাজা রামমোহন রায়ের একটি সংক্ষিপ্ত জীবনী। রাজা রামমোহন রায় জীবনী বা জীবন কথা নিয়ে বা জীবন সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করা হলো । A short biography of Ram Mohan Roy. Ram Mohan Roy’s Birthday, Parents, Education Life, Work Life, The practice of satidah, ‘Raja’ Title, Books, Biography (Jivani) in Bengali.

রাজা রামমোহন রায় কে ছিলেন ? Who is Ram Mohan Roy ?

রাজা রামমোহন রায় (Ram Mohan Roy) ছিলেন প্রথম ভারতীয় ধর্মীয়-সামাজিক পুনর্গঠন আন্দোলন ব্রাহ্মসমাজের প্রতিষ্ঠাতা এবং বাঙালি দার্শনিক। তৎকালীন রাজনীতি, জনপ্রশাসন, ধর্মীয় এবং শিক্ষাক্ষেত্রে রাজা রামমোহন রায়ের (Ram Mohan Roy) উল্লেখযোগ্য প্রভাব রাখতে পেরেছিলেন। রাজা রামমোহন রায় (Ram Mohan Roy) সবচেয়ে বেশি বিখ্যাত হয়েছেন, সতীদাহ প্রথা বিলুপ্ত করার প্রচেষ্টার জন্য। তখন হিন্দু বিধবা নারীদের স্বামীর চিতায় সহমরণে যেতে বা আত্মাহুতি দিতে বাধ্য করা হত।

ভারতের নব যুগের প্রবর্তক রাজা রামমোহন রায়ের জীবনী – Ram Mohan Roy Biography in Bengali :

নাম (Name) রাজা রামমোহন রায় (Ram Mohan Roy)
জন্ম (Birthday) ২২ মে, ১৭৭২ (22 May 1772)
জন্মস্থান (Birthplace) রাধানগর, বেঙ্গল প্রেসিডেন্সি, ব্রিটিশ ভারত
অভিভাবক (Parents)/ পিতামাতা রমকান্ত রায় (বাবা)

তারিণী দেবী (মা)

জাতীয়তা ভারতীয়
পেশা (Occupation) সামাজিক-ধর্মীয় সংস্কারক
শিক্ষা  কলকাতা পাটনা
আন্দোলন বাংলার নজাগরণ
প্রধান সংগঠন ব্রহ্ম সমাজ
মৃত্যু (Death) সেপ্টেম্বর ২৭, ১৮৩৩ (27 September 1833)

রাজা রামমোহন রায়ের জন্ম – Ram Mohan Roy’s Birthday :

রাজা রামমােহন রায় ১৭৭৪ খ্রীষ্টাব্দের ১০ ই মে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের হুগলি জেলার রাধানগর গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন।

রামমোহন রায়ের পিতা মাতা – Ram Mohan Roy’s Parents :

 তার পিতা জমিদার রামকান্ত রায় । মাতার নাম তারিণী দেবী । 

রামমোহন রায়ের শিক্ষাজীবন – Ram Mohan Roy’s Education Life :

 ছােটবেলা থেকেইরামমােহন রায় -এর লেখাপড়ার প্রতি ছিলাে প্রবল আগ্রহ । তিনি আট বছর বয়সে গ্রামের স্কুলে বাংলা এবং আরবীভাষা শিক্ষা করেন । তারপর পাটনায় গিয়ে আরবী ও ফারসি দুটো ভাষাতেইবুৎপত্তিঅর্জন করেন । বারাে বছর বয়সে তিনি সংস্কৃত , ভাষা শেখার জন্য কাশীধামে যান এবং চার বছর সেখানে পড়াশুনা করেন । এছাড়া তিনি বেদান্ত শাস্ত্রের উপরেও গবেষণা করেন । 

রামমােহন হিন্দুধর্মের সাকার উপাসনা পদ্ধতির বিরােধী :

 রামমােহন হিন্দুধর্মের সাকার উপাসনা পদ্ধতির বিরােধী ছিলেন । তিনি মুর্তিপূজা মানতেন না । তিনি হিন্দুদের পৌত্তলিক ধর্মপ্রণালী নামে একটি বইও রচনা করেন । এই বই পড়ে এবং নানা কারণে রামমােহনের পিতা পুত্রের উপর ক্ষুব্ধ হন এবং বাড়ি থেকে বের করে দেন । রামমােহন তিব্বতে চলে যান ঘুরতে ঘুরতে । তিব্বতে কয়েক বছর থেকে আবার ভারতে ফিরে আসেন । শিক্ষা করেন ইংরেজী ভাষা । এভাবে মাত্র তেইশ বছর বয়সের মধ্যে তিনি দশটি ভাষা শিখে ফেলেন । রামমােহন রায় বাংলা , ইংরেজী , আরবী ছাড়াও গ্রীক , হিব্রু , ল্যাটিন , ফারসী এবং উর্দু ভাষাতে লিখতে পড়তে পারতেন ।

রামমোহন রায়ের কর্মজীবন – Ram Mohan Roy’s Work Life :

 শিক্ষাজীবন শেষ করে রামমােহন রংপুরের ডেপুটি কালেক্টর । ডিগবিসাহেবের আমন্ত্রণে রাজস্ব বিভাগে এক উচ্চপদে চাকরি গ্রহণ করেন । অল্পদিনের মধ্যেই তিনি দেওয়ানি পদে পদোন্নতি লাভ করেন । 

 কিন্তু রামমােহন রায় চাকরি বেশিদিন করেননি । তিনি সাহিত্য সাধনাও সমাজ সংস্কার কাজের জন্য চাকরি ছেড়ে দিয়ে মুর্শিদাবাদে চলে আসেন । পরে কলকাতার মানিকতলায় বাড়ি কিনে সেখানেই বসবাস করতে থাকেন । এই মানিকতলার বাড়িতেই তিনি আত্মীয় সভা নামে একটি সংঘ প্রতিষ্ঠা করেন । কিছুকালের মধ্যে তিনি বাংলায় ব্রাহ্মণ পত্রিকা এবং ইংরেজীতে ইষ্ট ইন্ডিয়া গেজেট ’ নামে দুটো পত্রিকা বের করেন। 

[আরও দেখুন, রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর জীবনী – Rabindranath Tagore Biography in Bengali]

রামমোহন রায়ের ব্রহ্ম সমাজ প্রতিষ্ঠা : 

 ১৮২৭ সালে তিনি ধর্ম সমালােচনামূলক প্রতিষ্ঠান ব্রহ্মসভা ’ প্রতিষ্ঠা করেন । ব্রহ্মসভার মাধ্যমেই রামমােহন তার নতুন ধর্ম মতবাদ প্রচার করেন । তিনি বেদে বর্ণিত অদ্বিতীয় ব্রহ্মের উল্লেখ করে প্রচার করেন যে , ঈশ্বর এক এবং অদ্বিতীয় । তিনিই বেদের ব্রহ্ম । তিনি অদ্বিতীয় এবং নিরাকার । এইব্রহ্মের যারা উপাসকতারা হলেন ব্রাহ্ম । রামমােহন প্রবর্তিত এই মতবাদ সেকালে বিশেষ আলােড়ন সৃষ্টিকরেছিলাে । আজো ব্রাহ্মধর্ম মতবাদের প্রচুর অনুসারী আছে বাংলাদেশে ও পশ্চিমবঙ্গে । 

রামমোহন রায়ের সতীদাহ প্রথা – The practice of satidah :

 রামমােহন হিন্দুধর্মের বর্বর সতীদাহ প্রথায় খুব মর্মাহত হন । সেকালে হিন্দুধর্মের কোনাে স্বামী মারা গেলে স্ত্রীকেও স্বামীর সাথে জ্বলন্ত চিতায় আত্মাহুতি দিতে হতাে । একে বলা হতাে সহমরণ প্রথা । স্বামীর চিতায় আত্মহুতি দিয়ে সতী হওয়া । হিন্দুধর্মের এই অন্ধবিশ্বাস ও কুসংস্কারের বিরুদ্ধে রামমােহন প্রবল আন্দোলন গড়ে তােলেন । পরে ১৮২৯ খ্রীষ্টাব্দে তৎকালীন বৃটিশ ভারতের বড়লাট লর্ড উইলিয়াম বেন্টিঙ্ক – এর সহায়তায় সতীদাহ প্রথা রহিতকরণ আইন । পাস করাতে সক্ষম হন ।

 এভাবেই হিন্দুসমাজে ধর্মের নামে যুগ – যুগ ধরে প্রচলিত কুখ্যাত বর্বরসতীদাহ প্রথার বিলুপ্তি ঘটে। শুধুসতীদাহ প্রথা নয় , তার অক্লান্ত প্রচেষ্টার ফলে বাল্যবিবাহ , কন্যাপণ এবং গঙ্গায় সন্তান নিক্ষেপের ( বিসর্জনের ) মতাে আরাে কিছু সামাজিক কুপ্রথাও বন্ধ হয় ।

রামমোহন রায়ের রাজা উপাধি – Ram Mohan Roy’s ‘Raja’ Title :

 রামমােহনের জীবনের আরেকটি উল্লেখযােগ্য ঘটনা হলাে বৃটিশ কর্তৃক ক্ষমতাচ্যুত মােঘল বাদশাহ দ্বিতীয় আকবর শাহ – এর বৃত্তি বৃদ্ধির জন্য বিলেত গমন । তিনি বাদশাহ দ্বিতীয় আকবরের প্রতিনিধি রূপে বিলেত গমন করে পার্লামেন্টে বাদশাহর পক্ষে বক্তৃতা দিয়ে বাদশাহর বৃত্তির অংক বৃদ্ধি করাতে সক্ষম হন । বিলেতে যাবার আগে । বাদশা রামমােহনকে রাজা উপাধিতে ভূষিত করেন । 

রামমোহন রায়ের মৃত্যু – Ram Mohan Roy’s Death : 

 ১৮৩৩ খ্রীষ্টাব্দের ২৭ শে সেপ্টেম্বর রাজা রামমােহন রায় ইংল্যান্ডের ব্রিষ্টল শহরে মৃত্যুবরণ করেন । তাকে ব্রিষ্টল নাগরীর স্টেপলটন গ্লোভে সমাহিত করা হয় । পরে রবীন্দ্রনাথ ঠাকুরের পিতামহ প্রিন্স দ্বারকানাথ ঠাকুর ব্রিষ্টলে গিয়ে তার পবিত্র দেহউক্ত স্থান থেকে সরিয়ে ‘ আরনােজভেল ’ নামকস্থানে সমাহিত করেন । 

রাজা রামমোহন রায়ের জীবনী (প্রশ্ন ও উত্তর) – Raja Ram Mohan Roy’s Biography in Bengali (FAQ) :

  1. রাজা রামমোহন রায়ের কবে জন্মগ্রহণ করেন ?

Ans: ২২ মে ১৭৭২ সালে ।

  1. রাজা রামমোহন রায় কে ছিলেন ?

Ans: রাজা রামমোহন রায় ছিলেন সামাজিক-ধর্মীয় সংস্কারক ।

  1. রাজা রামমোহন রায়ের পিতা ও মাতার নাম কী ?

Ans: রমকান্ত রায়, তারিণী দেবী ছিলেন তার পিতা ও মাতা ।

  1. রাজা রামমোহন রায় কে ‘রাজা’ উপাধি কে দেন ?

Ans: বাদশাহ দ্বিতীয় আকবর ।

  1. রাজা রামমোহন রায় সতীদাহ প্রথা কবে বন্ধ করেন ?

Ans: ১৮২৯ সালে ।

  1. রাজা রামমোহন রায়ের শিক্ষাজীবন কোথায় ? 

Ans: কলকাতা ও পাটনায় ।

  1. রাজা রামমোহন রায়ের প্রধান সংগঠন কী ?

Ans: ব্রহ্ম সমাজ ।

  1. রাজা রামমোহন রায় কিভাবে মারা যান ?

Ans: মেনিনজাইটিসে আক্রান্ত হয়ে মারা যান।

  1. ভারতের নব যুগের প্রবর্তক কে ছিলেন ?

Ans: রাজা রামমোহন রায় ।

  1. রাজা রামমোহন রায় কবে মারা যান ?

Ans: সেপ্টেম্বর ২৭, ১৮৩৩ ।

[আরও দেখুন, কাজী নজরুল ইসলাম জীবনী – Kazi Nazrul Islam Biography in Bengali

আরও দেখুন, বঙ্কিমচন্দ্র চট্টোপাধ্যায় জীবনী – Bankim Chandra Chatterjee Biography in Bengali

আরও দেখুন, শরৎচন্দ্র চট্টোপাধ্যায় জীবনী | Sarat Chandra Chattopadhyay Biography in Bengali

আরও দেখুন, বিভূতভূষণ বন্দ্যোপাধ্যায় জীবনী – Bibhutibhushan Bandyopadhyay Biography in Bengali]

🔘 প্রতিদিন আপডেট পেতে সাবস্ক্রাইব করুন
Join Our Telegram Channel Click Here
Subscribe Our YouTube Channel Click Here
Like Our Facebook Page Click Here

রাজা রামমোহন রায় জীবনী – Ram Mohan Roy Biography in Bengali

   অসংখ্য ধন্যবাদ সময় করে আমাদের এই ” রাজা রামমোহন রায় জীবনী – Ram Mohan Roy Biography in Bengali  ” পােস্টটি পড়ার জন্য। এই ভাবেই BhugolShiksha.com ওয়েবসাইটের পাশে থাকো যেকোনো প্ৰশ্ন উত্তর জানতে এই ওয়েবসাইট টি ফলাে করো এবং নিজেকে  তথ্য সমৃদ্ধ করে তোলো , ধন্যবাদ।