উচ্চ মাধ্যমিক ভূগোল (প্রাকৃতিক – সপ্তম অধ্যায়) বায়ুমণ্ডল | পরীক্ষা প্রস্তুতিমূলক প্রশ্নোত্তর | Higher Secondary Geography Exam Guide | Bhugol Shiksha

3008

উচ্চ মাধ্যমিক ভূগোল – HS Geography

প্রাকৃতিক ভুগোল সপ্তম অধ্যায় – বায়ুমণ্ডল

পরীক্ষা প্রস্তুতিমূলক প্রশ্নোত্তর

MCQ প্রশ্নোত্তর [ মান – 1 ]

1. জেট বায়ুপ্রবাহ দেখা যায় ভূপৃষ্ঠ থেকে উপরে –
(a) ৫-১০ কিমি (b) ৭.৫ – ১৪ কিমি (c) ৮-৯ কিমি (d) ২০ – ২৫ কিমি।

ans. (b) ৭.৫ – ১৪ কিমি

2. জেট বায়ুর আবিষ্কারক হলেন –
(a) জে. সি ফারমেন (b) সি. জি. রসবি (C) পিটারসন (d) ট্রিওয়ারদা

ans. (b) সি. জি. রসবি

3. বায়ুমণ্ডলীয় গোলযোগ দেখা যায় যে স্তরে –
(a) ট্রপোপেজ (b) ট্রপোস্ফিয়ার (c) ওজোনমণ্ডল (d) স্ট্রাটোস্ফিয়ার

ans. (b) ট্রপোস্ফিয়ার

4. অস্ট্রেলিয়া উপকূলে ঘূর্ণবাত হলো –
(a) খামসিন (b) উইলি উইলি (C) ফন (d) সাইমুন

ans. (b) উইলি উইলি

5. এল নিনো দেখা যায় –
(a) ভারত মহাসাগরে (b) আরব সাগরে (c) প্রশান্ত মহাসাগরে (d) আটলান্টিক মহাসাগরে

ans. (c) প্রশান্ত মহাসাগরে

6. হারমাট্টান প্রবাহিত হয় –
(a) মিশরে (b) লিবিয়ায় (c) গিনি উপকূলে (d) ভারতে

ans. (c) গিনি উপকূলে

7. জেট স্ট্রিম দেখা যায় –
(a) ট্রপোস্ফিয়ারের উর্ধ্বে (b) স্ট্রাটোস্ফিয়ারের ঊর্ধ্বে (c) মেসোস্ফিয়ারের ঊর্ধ্বে (d) কোনোটিই নয়

ans. (a) ট্রপোস্ফিয়ারের উর্ধ্বে

8. কখন এল-নিনো সংঘটিত হয়?
(a) শরৎকালে (b) গ্রীষ্মকালে (c) ডিসেম্বর মাসে (d) বর্ষাকালে

ans. (c) ডিসেম্বর মাসে

9. ক্রান্তীয় ঘূর্ণবাতের গতিবেগ –
(a) ১০০ কিমি (b) ১০ কিমি (c) ১০০-২৫০ কিমি (d) ২০-৩০০ কিমি

ans. (c) ১০০-২৫০ কিমি

10. সর্বাপেক্ষা বিধ্বংসী প্রকৃতির ঘূর্ণিঝড় –
(a) সাইক্লোন (b) টাইফুন (c) ফন (d) টর্নেডো

ans. (d) টর্নেডো

11. রাজস্থানের ধূলিঝড়কে বলা হয় –
(a) ফন (b) আঁধি (c) সাইমুন (d) কালবৈশাখী

ans. (b) আঁধি

12. U.S.A-এর মিসিসিপি উপত্যকায় সৃষ্ট টর্নেডোকে বলা হয়—
(a) টুইস্টার (b) টাইফুন (c) ব্যাগুই (d) ফন

ans. (a) টুইস্টার

13. ফিলিপিন্স দ্বীপপুঞ্জে ঘূর্ণবাতকে বলা হয় –
(a) টাইফুন (b) হারমাট্টান (c) টুইস্টার (d) ব্যাগুই

ans. (d) ব্যাগুই

14. পূর্ব চিন সাগরে সৃষ্ট ক্রান্তীয় ঘূর্ণিঝড় কী নামে পরিচিত?
(a) উইলি উইলি (b) হ্যারিকেন (c) টাইফুন (d) টর্নেডো

ans. (c) টাইফুন

15. বঙ্গোপসাগরে উদ্ভূত নিম্নচাপ বিশিষ্ট ঝড়-ঝঞা হলো—
(a) হারমাট্টাম (b) টর্নেডো (c) টাইফুন (d) সাইক্লোন

ans. (d) সাইক্লোন

অতিসংক্ষিপ্ত প্রশ্নোত্তর [মান – 1]

1.মৌসুমি বিস্ফোরণ কী?

ans. ঊর্ধ্ব আকাশে কিউমুলোনিম্বাস মেঘ হতে হঠাৎ মুষলধারে ঝড়-বৃষ্টি হতে শর করে, দক্ষিণ ও দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়ায় একে মৌসুমি বিস্ফোরণ বলে।

2. নিরক্ষীয় শান্তমণ্ডল কাকে বলে?

ans. নিরক্ষরেখার উভয় পাশে 59–10° অক্ষাংশে উত্তর-পূর্ব ও দক্ষিণ-পূর্ব আয়ন। বায়ু মিলিত হলে নিরক্ষরেখায় বায়ুর অনুভূমিক প্রবাহ লক্ষ করা যায় না বলে নিরক্ষীয়। অঞলটিকে শান্তমণ্ডল বলা হয়।

3. Rain follows the sun কী?

ans. নিরক্ষীয় নিম্নচাপ বলয় ও বৃষ্টিবলয় সূর্যের উত্তরায়ণ ও দক্ষিণায়নের সঙ্গে সঙ্গে স্থান পরিবর্তন করে, তাই একে Rain follows the sun বলা হয়।

4. হ্যারিকেন কী?

ans. মেক্সিকো উপসাগরের উপকূল, ক্যারিবিয়ান সাগর, পশ্চিম ভারতীয় দ্বীপপুঞ্জ ও উত্তর-পূর্ব প্রশান্ত মহাসাগরে সৃষ্ট ক্রান্তীয় ঘূর্ণবাতকে বলা হয় হ্যারিকেন।

5. হ্যাডলি কোশ কাকে বলে?

ans. নিরক্ষীয় ও ক্রান্তীয় অঞ্চলে বায়ু নিরক্ষীয় প্রদেশের দিকে এবং অধিক উয়তায় ভূপৃষ্ঠ থেকে মেরুর দিকে চলাচল করে। এটি আবহবিদ জর্জ হ্যাডলি লক্ষ করেন বলে তাঁর নামানুসারে একে হ্যাডলি কোশ বলে। এটি নিরক্ষরেখার উভয় পাশে কর্কটীয় ও মকরীয় উচ্চচাপ বলয়ে লক্ষ করা যায়।

6. ফেরেল কোশ কী?

ans. মধ্য অক্ষাংশে বায়ু ভূপৃষ্ঠ থেকে মেরুর দিকে এবং অধিক উন্নতায় নিরক্ষীয় প্রদেশের দিকে চলাচল করে। এটি উইলিয়াম ফেরলে 1856 সালে লক্ষ করেন বলে তাঁর নামানুসারে একে ফেরল কোশ বলে।

7. রসবি তরঙ্গ কী ?

ans. পথিবীর আবর্তন গতি ও তাপের তারতম্য জনিত কারণে উভয় গোলার্ধে পশ্চিমা বায় পশ্চিম থেকে পূর্বে বয়ে চলেছে। এই বায়ুপ্রবাহের ফলে যে বৃহদাকতির তরল তৈরি হয়, তাকে রসবি তরঙ্গ বলে।

8. বজ্রবিদ্যুৎ সহ ঝঞ্ঝা কাকে বলে?

ans. মেঘে মেঘে ঘর্ষণের ফলে প্রচণ্ড বেগে বজ্রবিদ্যুৎ সহ বৃষ্টি হলে তাকে বজ্রবিদ্যুৎ সহ ঝঞ্ঝা বলে।

9. ওয়াকার সার্কুলেশন কাকে বলে?

ans. নিরক্ষরেখা বরাবর একটি বৃহদাকৃতির বায়ুমণ্ডলীয় কোশ পূর্ব-পশ্চিমে বিস্তৃত। রয়েছে, একেই ব্রিটিশ বিজ্ঞানী স্যার গিলবার্ট ওয়াকারের নামানুসারে ওয়াকার সার্কুলেশন বলে। অনেকেই একে সার্দান অসিলেশন বলে।

10. এল নিনো কী?

ans. এল নিনো শব্দের অর্থ হলো শিশু জিশুখ্রিস্ট। 2-7 বছর অন্তর ক্রান্তীয় প্রশান্ত। মহাসাগরের পূর্ব প্রান্তে পেরু উপকূল দিয়ে যে দক্ষিণমুখী উষ্ণ স্রোত প্রবাহিত হয়, তাকে এল নিনো বলে।

11. লা নিনা কী?

ans. লা নিনা শব্দের অর্থ হলো ছোটো মেয়ে। এটি এল নিনোর বিপরীত অবস্থা। প্রশান্ত মহাসাগরের পূর্বভাগে যখন শুষ্ক ও শান্ত আবহাওয়া বিরাজ করে, তখন তাকে লা নিনা বলা হয়।

12. বায়ুপ্রবাহ কাকে বলে?

ans. চাপের তারতম্য জনিত কারণে বায়ু উচ্চচাপ অঞ্চল থেকে নিম্নচাপ অঞ্চলের দিকে প্রবাহিত হওয়াকে বলা হয় বায়ুপ্রবাহ।

13. বায়ুস্রোত কাকে বলে?

ans. উষ্ণতার তারতম্য জনিত কারণে ঊর্ধ্বমুখী ও নিম্নমুখী হয়ে বায়ুর স্থানান্তর ঘটে, একে বায়ুস্রোত বলে।

14. ঘূর্ণবাতজাত ঝড় কাকে বলে?

ans. সাধারণত যখন কোনো ঘূর্ণবাতের সঙ্গে প্রবল গতিতে বায়ু প্রবাহিত হতে থাকে তখন তাকে ঘূর্ণবাতজাত ঝড় (cyclonic storm) বলে।

15. মৌসুমি নিম্নচাপ কাকে বলে?

ans. বঙ্গোপসাগরে দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমি বায়ুর আগমনকালে দুর্বল প্রকৃতির। ঘূর্ণবাতের সৃষ্টি হয়, সাধারণভাবে একে মৌসুমি নিম্নচাপ বলে।

16. ক্রান্তীয় ঝড় কাকে বলে?

ans. যেসব ক্রান্তীয় ঘূর্ণবাতে বাতাসের গতিবেগ ঘণ্টায় 63-87 কিমি হয়, তাদের ক্রান্তীয় ঝড় বলে।

17. জেট স্ট্রিম কী?

ans. সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে 10-12 কিমি. উচ্চতায় আঁকাবাঁকা বা সর্পিলভাবে পশ্চিম থেকে। পূর্বে প্রবল গতিসম্পন্ন যে বায়ু প্রবাহিত হয়, তাকে জেট স্ট্রিম বলে।

বিশ্লেষণ বা বর্ণনাভিত্তিক প্রশ্নোত্তর [ মান (7) ]

1. ঘূর্ণবাতের চক্ষুর সংজ্ঞা দাও । ক্রান্তীয় ঘূর্ণবাতের শ্রেণিবিভাগ ও উৎপত্তি সংক্ষেপে ব্যাখ্যা করো।

2. ক্রান্তীয় ঘূর্ণবাত ও নাতিশীতোষ্ণ ঘূর্ণবাতের মধ্যে পার্থক্য লেখো।

3. উষ্ণ সীমান্ত ও শীতল সীমান্তের মধ্যে পার্থক্য লেখো। ঘূর্ণবাত ও প্রতীপ । ঘূর্ণবাতের মধ্যে পার্থক্য লেখো।

4. জেট স্ট্রিম কী ? এর বৈশিষ্ট্য লেখ ? মৌসুমি বায়ুর উপর জেট বায়ুর প্রভাব উল্লেখ করো।

5. জেট স্ট্রিমের ইনডেক্স সাইকেল কী ? মৌসুমি বায়ুর উপর এল নিনোর প্রভাব ব্যাখ্যা করো। ত্রিকোশ মডেল কী?



        “ উচ্চ মাধ্যমিক প্রাকৃতিক ভুগোল সপ্তম অধ্যায় – বায়ুমণ্ডল ” একটি অতি গুরুত্বপূর্ণ টপিক উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষায় (Higher Secondary – HS) এবং বিভিন্ন চাকরির (WBCS, WBSSC, RAIL, PSC, DEFENCE) পরীক্ষায় এখান থেকে প্রশ্ন অবশ্যম্ভাবী । সে কথা মাথায় রেখে ভূগোল শিক্ষা – Bhugol Shiksha এর পক্ষ থেকে উচ্চমাধ্যমিক ভূগোল পরীক্ষা প্রস্তুতিমূলক প্রশ্নোত্তর (Higher Secondary Geography Exam Guide) উপস্থাপনের প্রচেষ্টা করা হলাে। ছাত্রছাত্রী, পরীক্ষার্থীদের উপকারেলাগলে, আমাদের প্রয়াস (উচ্চ মাধ্যমিক ভূগোল পরীক্ষা প্রস্তুতিমূলক প্রশ্নোত্তর – Higher Secondary Geography Exam Guide) সফল হবে।
স্কুল, কলেজ ও বিভিন্ন ছাত্রছাত্রীদের পড়াশোনার ডিজিটাল মাধ্যম www.BhugolShiksha.com । এর প্রধান উদ্দেশ্য পঞ্চম শ্রেণী থেকে দ্বাদশ শ্রেণীর সমস্ত বিষয় এবং গ্রাডুয়েশনের ভূগোল বিষয়কে  সহজ বাংলা ভাষায় আলোচনার মাধ্যমে ছাত্রছাত্রীদের কাছে সহজ করে তোলা। এছাড়াও সাধারণ-জ্ঞান, পরীক্ষা প্রস্তুতি, ভ্রমণ গাইড, আশ্চর্যজনক তথ্য, সফল ব্যাক্তিদের জীবনী, বিখ্যাত ব্যাক্তিদের উক্তি,  প্রাণী জ্ঞান, কম্পিউটার, বিজ্ঞান ও বিবিধ প্রবন্ধের মাধ্যমে ছাত্রছাত্রীদের মননকে বিকশিত করে তোলা।

       আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ সময় করে আমাদের পােস্টটি পড়ার জন্য। এই ভাবেই BhugolShiksha.com এর পাশে থাকুন। ভূগোল বিষয়ে যেকোনো প্ৰশ্ন উত্তর জানতে এই ওয়েবসাইট টি ফলাে করুন এবং নিজেকে তথ্য সমৃদ্ধ করে তুলুন , ধন্যবাদ।

নিচের বাটনে ক্লিক করে শেয়ার করেন বন্ধুদের মাঝে