চার্লস ডারউইনের জীবনী – Charles Darwin Biography in Bengali

23
চার্লস ডারউইনের জীবনী - Charles Darwin Biography in Bengali
চার্লস ডারউইনের জীবনী - Charles Darwin Biography in Bengali

চার্লস ডারউইনের জীবনী

Charles Darwin Biography in Bengali

চার্লস ডারউইনের জীবনী – Charles Darwin Biography in Bengali : পৃথিবীতে শত শত বিজ্ঞানী ছিলেন ও আছেন। তারা প্রতিনিয়ত বিজ্ঞানের জাদুকরী জগতটাকে নানাভাবে ভ্রমণ ও বিচার-বিশ্লেষণ করে চলেছেন। ভাবছেন, বিজ্ঞানকে কীভাবে মানুষের কল্যাণে আরও বেশি বেশি করে কাজে লাগান যায়– এসব নিয়ে পরিশ্রম করেই কেটে যায় তাদের দিন-রাত্রি। কিন্তু এদের মধ্যে এমন কয়েকজন বিজ্ঞানী আছেন, যাদের অসাধারণ চিন্তাশক্তি ও উদ্ভাবনী ক্ষমতা দিয়ে আমাদের পৃথিবীটাকেই বদলে দিয়েছেন।

পৃথিবীকে বদলে দেয়া তেমন একজন বিজ্ঞানী হলেন, ব্রিটিশ প্রকৃতিবিদ চার্লস ডারউইন। 

 ইংরেজ জীববিজ্ঞানী চার্লস ডারউইন এর একটি সংক্ষিপ্ত জীবনী । চার্লস ডারউইন এর জীবনী – Charles Darwin Biography in Bengali বা চার্লস ডারউইন এর আত্মজীবনী বা (Charles Darwin Jivani Bangla. A short biography of Charles Darwin. Charles Darwin Birth, Place, Life Story, Life History, Biography in Bengali) চার্লস ডারউইন এর জীবন রচনা সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করা হলো।

চার্লস ডারউইন কে ছিলেন ? Who is Charles Darwin ?

চার্লস ডারউইন (Charles Darwin) ছিলেন ঊনিশ শতকের একজন ইংরেজ জীববিজ্ঞানী। চার্লস ডারউইন (Charles Darwin) প্রথম প্রত্যক্ষ পর্যবেক্ষণের মাধ্যমে বিবর্তনবাদের ধারণা দেন। তিনিই সর্বপ্রথম অনুধাবন করেন যে সকল প্রকার প্রজাতিই কিছু সাধারণ পূর্বপুরুষ হতে উদ্ভূত হয়েছে এবং তার এ পর্যবেক্ষণটি সাক্ষ্য-প্রমাণ দিয়ে প্রতিষ্ঠা করেন।বিবর্তনের এই নানান শাখা-প্রশাখায় ভাগ হবার বিন্যাসকে চার্লস ডারউইন (Charles Darwin) প্রাকৃতিক নির্বাচন হিসাবে অভিহিত করেন।

চার্লস ডারউইনের সংক্ষিপ্ত জীবনী – Charles Darwin Short Biography in Bengali :

নাম (Name) চার্লস ডারউইন (Charles Darwin)
জন্ম (Birthday) ১২ ফেব্রুয়ারি ১৮০৯
জন্মস্থান (Birthplace) ইংল্যান্ডের শ্রুসবেরি
অভিভাবক (Parents) রবার্ট ডারউইন ও সুজানা ডারউইন 
জাতীয়তা ব্রিটিশ
কর্মক্ষেত্র প্রকৃতিবিদ
প্রতিষ্ঠান রয়েল জিওগ্রাফিকাল সোসাইটি
পরিচিতির কারণ বিগলের সমুদ্রযাত্রা

প্রজাতির উৎপত্তি সম্পর্কে

প্রাকৃতিক নির্বাচন

উল্লেখযোগ্য পুরস্কার রয়েল মেডেল (১৮৫৩)

ওলাস্টন মেডেল (১৮৫৯)

কপলে পদক (১৮৬৪)

মৃত্যু (Death) ১৯ এপ্রিল ১৮৮২ (19th April 1882)

চার্লস ডারউইনের জন্ম – Charles Darwin Birthday :

 বিবর্তনবাদের প্রবক্তা চার্লস ডারউইন ১৮০৯ সালের ১২ ই ফেব্রুয়ারি ইংল্যান্ডের সবেরি অঞ্চলের এক সুশিক্ষিত ও ঐতিহ্যবাহী পরিবারে জন্মগ্রহণ করেন ।

চার্লস ডারউইনের পিতামাতা – Charles Darwin Parents :

 বাবার নাম রবার্ট ডারউইন পেশায় তিনি ডাক্তার ছিলেন । ডারউইনের বয়স যখন ৮ বছর , তখন তাঁর মা মারা যান । পিতার স্নেহ এবং বােনদের আদর – যত্নে তার শৈশব কাটে । 

চার্লস ডারউইনের শৈশবকাল – Charles Darwin Childhood :

 ছােটবেলায় খুব দুষ্ট প্রকৃতির ছিলেন চার্লস ডারউইন । পড়াশুনার চেয়ে সে সময় তিনি প্রকৃতির মধ্যে বনে – জঙ্গলে ঘুরে বেড়াতেন । নানা জাতের পােকামাকড় , ফড়িং , প্রজাপতি , পশুপাখির ছানা , ঝিনুক , গাছপালা , ফুল – ফল ইত্যাদি খুঁটিয়ে খুঁটিয়ে পর্যবেক্ষণ করতেন আর সে – সব সম্পর্কে নিজের লব্ধ জ্ঞান ও প্রাপ্ত তথ্য খাতায় লিখে রাখতেন । 

 ছেলের এই স্বভাব বদলাবার জন্য বাবার্তাকে এডিনবরায় ডাক্তারী পড়তে পাঠালেন । ডাক্তারী তার ভালাে লাগলাে না । এখানে ডারউইন তার মনের মতাে কয়েকজন বন্ধু পেলেন , যারা তার মতই প্রকৃতিবিজ্ঞানী । তাদের নিজেদের মধ্যে আলাপ – আলােচনার ভিত্তিতে প্রাপ্ত তথ্য তিনি খাতায় নােট করে রাখতেন । 

চার্লস ডারউইনের শিক্ষাজীবন – Charles Darwin Education Life :

 বাবা এবারও হতাশ হয়ে ছেলেকে গীর্জার পাত্রী করতে চাইলেন । সেইজন্য তিনি ডারউইনকে কেমব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ে ধর্মতত্বে ভর্তি করে দিলেন । কিন্তু চার্লস ডারউইন সেখানে পড়তে গিয়েও পােকা মাকড় , গাছপালা , ফসল পরীক্ষা করার স্বভাব ত্যাগ করলেন না । অবশ্য শেষ পর্যন্ত ডারউইন ২২ বছর বয়সে ধর্মতত্বে ডিগ্রী লাভ করেন । 

চার্লস ডারউইনের বিশ্বভ্রমণ – Charles Darwin World Tour :

 চার্লস ডারউইন কেমব্রিজ বিশ্ববিদ্যালয়ের উদ্ভিদবিদ্যার অধ্যাপক হেনস্লের খুব প্রিয়পাত্র ছিলেন । তিনি ডারউইনকে ভূতত্ববিদ হাটন , লাওয়েল প্রমুখের বই পড়ার উপদেশ দিলেন । একবার তার জীবনের সবচেয়ে বড় সুযােগ এসে গেল অধ্যাপক হেনলয় একটা প্রভাবে । ‘ বীগল ‘ নামের একটা জাহাজ বিশ্বভ্রমণে বের হচ্ছে ১৮৩১ সালের ২৭ শে ডিসেম্বর নানা গবেষণা কাজের জন্য । অধ্যাপক হেনসলের সুপারিশে সেই জাহাজের ক্যাপ্টেন চার্লস ডারউইনকে তার সঙ্গে নিতে রাজী হলেন । 

 অনেক সাগর – মহাসাগর , দ্বীপ – উপদ্বীপ ও মহাদেশের একপ্রান্ত থেকে আর এক প্রান্ত পর্যন্ত ঘুরে বেড়াবার পরম সুযােগ লাভ করলেন তিনি যুবা বয়সে । 

 চার্লস ডারউইন দক্ষিণ আমেরিকার উত্তর প্রান্ত থেকে দক্ষিণ প্রান্ত পর্যন্ত ঘুরে বেড়াবার সময় এক জায়গার পাখিদের সঙ্গে অন্য জায়গার পাখিদের যেমন মিল লক্ষ্য করলেন , তেমনি অমিলও লক্ষ্য করলেন । এরপর তিনি নিউজিল্যান্ড , অস্ট্রেলিয়া , তাহিতি , সেন্ট হেলেনা , আটলান্টিক দ্বীপপুঞ্জ প্রভৃতি বিভিন্ন জায়গায় ঘুরে বেড়িয়ে তথ্য সংগ্রহ করে মনে – মনে সে – সবের ব্যাখ্যা দাঁড় করাতে লাগলেন ।

চার্লস ডারউইনের প্রবন্ধ লেখা – Charles Darwin Essays :

 ১৮৩৬ সালের ২ রা অক্টোবর বীগল জাহাজে করে চালর্স ডারউইন দেশে ফিরে এলেন । দেশে ফিরে এসে তার জ্ঞান , অভিজ্ঞতা , প্রাপ্ত তথ্য ইত্যাদির উপর ভিত্তি করে বিভিন্ন পত্রিকায় প্রবন্ধ – নিবন্ধ লিখতে শুরু করলেন । 

[আরও দেখুন, আর্কিমিডিস এর জীবনী – Archimedes Biography in Bengali]

চার্লস ডারউইনের বিখ্যাত বই – Charles Darwin Famous Book :

 এক সময় তার বিশ্ববিখ্যাত আলােড়ন সৃষ্টিকারী বই ‘ অরিজিন অব স্পেসিস ‘ লেখা শেষ করে ফেললেন । কিন্তু তিনি সহসা বইটি প্রকাশ করতে চাইছিলেন না । কিন্তু তার চেয়ে কম বয়সী মালয় দেশের এক বিজ্ঞানীর কীট – পতঙ্গ বিষয়ে পত্র পেয়ে তিনি তাদের । দু’জনের মতের মিল দেখে অবাক হয়ে গেলেন । বন্ধুরা তাকে তার গবেষণালব্ধ বইটি সত্বর প্রকাশের জন্য পরামর্শ দিলেন, চার্লস ডারউইন তাই করলেন । 

[আরও দেখুন, ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগর জীবনী – Ishwar Chandra Vidyasagar Biography in Bengali]

চার্লস ডারউইনের ‘ অরিজিন অফ স্পেসিস ‘ বই – 

 ১৮৫৯ সালের নভেম্বর মাসে তার বিশ্বকাপানাে বই ‘ অরিজিন অফ স্পেসিস ‘ প্রকাশিত হয় । তার এই গ্রন্থের মাধ্যমে যুগান্তকারী ‘ বিবর্তন মতবাদ ’ বৈজ্ঞানিকতত্ত হিসাবে প্রতিষ্ঠিত হয় । এক মাসের মধ্যে বইটি প্রথম সংস্করণ নিঃশেষ হয়ে যায় । বিশ্বের সভ্য শিক্ষিত দেশগুলােতে বইটির অনুবাদও প্রকাশিত হতে থাকে । 

 চার্লস ডারউইনের বিবর্তন মতবাদ অনুযায়ী বিশেষ সকল প্রাণী । এবং প্রকৃতির বিভিন্ন সৃষ্টি হঠাৎ একদিনে সৃষ্টি হয়নি । ধীরে ধীরে বিবর্তনের মধ্য দিয়ে সৃষ্টি হয়েছে । কোটি – কোটি বছরের এই প্রক্রিয়া । 

 ডারউইনের এই মতবাদ বিভিন্ন ধর্মের মতবাদের সম্পূর্ণ বিপরীতধর্মী । খ্রীস্টান সমাজের পাত্রীরা ধর্মান্ধ ব্যক্তিরা তার বক্তব্যের সিদ্ধান্তের তীব্র প্রতিবাদ জানাতে থাকে । জ্যোতিবিমানের গুগতে টাইকো ব্রাহে এবং গ্যালিলিও যেভাবে গোঁড়া খ্রীস্টানদের কাছ থেকে অবমাননা লাঞ্ছনা সহ্য করেছেন , টাইকো ব্রাহেকে পুড়িয়ে মারা হয়েছিলল , ঠিক ততােটুকু না হলেও বিবর্তনবাদ প্রচারের জন্য । ডারউইনকে নানা লাঞ্ছনা ও অপবাদ সহা করতে হয়েছে ।

 ডারউইনের মতবাদের সঙ্গে আধুনিককালের তীববিজ্ঞানীদের মধ্যে কিছু কিছু বিষয়ে দ্বিমত সৃষ্টি হলেও বিবর্তন মতবাদ যুগান্তকারী সত্যের ধারক হিসাবে এখনাে বিবেচিত হয় । 

চার্লস ডারউইনের মৃত্যু – Charles Darwin Death :

 ১৮৮২ সালের ১৯ শে এপ্রিল ৭৩ বছর বয়সে এই দুঃসাহসী বিজ্ঞানীর মৃত্যু হয় ।

 তাকে রাজকীয় মর্যাদায় নিউটন – এর পাশে লণ্ডনের ওয়েস্ট মিনিস্টার এ্যাবিতে সমাহিত করা হয় । 

 বিবর্তনবাদের প্রবক্তা চার্লস ডারউইন মানব ইতািসে তিনি অমর হয়ে থাকবেন ।

চার্লস ডারউইনের জীবনী (প্রশ্ন ও উত্তর) – Charles Darwin Biography in Bengali (FAQ):

  1. চার্লস ডারউইনের জন্ম কোথায় হয় ?

Ans: ইংল্যান্ডের শ্রুসবেরি ।

  1. চার্লস ডারউইনের জন্ম কবে হয় ?

Ans: ১২ ফেব্রুয়ারি ১৮০৯ সালে ।

  1. চার্লস ডারউইনের পিতার নাম কী ?

Ans: রবার্ট ডারউইন ।

  1. চার্লস ডারউইনের মাতার নাম কী ?

Ans: সুজানা ডারউইন ।

  1. চার্লস ডারউইন রয়েল মডেল পুরস্কার কবে পান ?

Ans: ১৮৫৩ সালে ।

  1. চার্লস ডারউইনের প্রতিষ্ঠানের নাম কী ?

Ans: রয়েল জিওগ্রাফিকাল সোসাইটি ।

  1. চার্লস ডারউইন কোন জাহাজে বিশ্বভ্রমনে বের হন ?

Ans: বীগল জাহাজ এ ।

  1. চার্লস ডারউইন কবে কপলে পদক পান ?

Ans: ১৮৬৪ সালে ।

  1. চার্লস ডারউইন কবে জন্মগ্রহণ করেন?

Ans: ১২ ফেব্রুয়ারি ১৮০৯ সালে ।

  1. চার্লস ডারউইনের মৃত্যু কবে হয় ?

Ans: ১৯ এপ্রিল ১৮৮২ সালে ।

[আরও দেখুন, রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর জীবনী – Rabindranath Tagore Biography in Bengali

আরও দেখুন, জেমস ওয়াট এর জীবনী – James Watt Biography in Bengali

আরও দেখুন, আগাথা ক্রিস্টি এর জীবনী – Agatha Christie Biography in Bengali

আরও দেখুন, আলবার্ট আইনস্টাইন জীবনী – Albert Einstein Biography in Bengali]

চার্লস ডারউইন এর জীবনী – Charles Darwin Biography in Bengali

   অসংখ্য ধন্যবাদ সময় করে আমাদের এই ” চার্লস ডারউইন এর জীবনী – Charles Darwin Biography in Bengali  ” পােস্টটি পড়ার জন্য। চার্লস ডারউইন এর জীবনী – Charles Darwin Biography in Bengali পড়ে কেমন লাগলো কমেন্টে জানাও। আশা করি এই চার্লস ডারউইন এর জীবনী – Charles Darwin Biography in Bengali পোস্টটি থেকে উপকৃত হবে। এই ভাবেই BhugolShiksha.com ওয়েবসাইটের পাশে থাকো যেকোনো প্ৰশ্ন উত্তর জানতে এই ওয়েবসাইট টি ফলাে করো এবং নিজেকে  তথ্য সমৃদ্ধ করে তোলো , ধন্যবাদ।