উচ্চমাধ্যমিক বাংলা - প্রবন্ধ রচনা প্রশ্ন ও উত্তর | HS Bengali Question and Answer
উচ্চমাধ্যমিক বাংলা - প্রবন্ধ রচনা প্রশ্ন ও উত্তর | HS Bengali Question and Answer

উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর

প্রবন্ধ রচনা | HS Bengali Question and Answer

উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর : প্রবন্ধ রচনা HS Bengali Question and Answer : উচ্চমাধ্যমিক বাংলা – প্রবন্ধ রচনা প্রশ্ন ও উত্তর | HS Bengali Question and Answer নিচে দেওয়া হলো। এই দ্বাদশ শ্রেণীর বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর – WBCHSE Class 12 Bengali Question and Answer, Suggestion, Notes – প্রবন্ধ রচনা থেকে বহুবিকল্পভিত্তিক, সংক্ষিপ্ত, অতিসংক্ষিপ্ত এবং রোচনাধর্মী প্রশ্ন উত্তর (MCQ, Very Short, Short,  Descriptive Question and Answer) গুলি আগামী West Bengal Class 12th Twelve XII Bengali Examination – পশ্চিমবঙ্গ উচ্চমাধ্যমিক বাংলা পরীক্ষার জন্য খুব ইম্পর্টেন্ট।

 তোমরা যারা প্রবন্ধ রচনা – উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর | HS Bengali Question and Answer Question and Answer খুঁজে চলেছ, তারা নিচে দেওয়া প্রশ্ন ও উত্তর গুলো ভালো করে পড়তে পারো। 

প্রবন্ধ রচনা – উচ্চমাধ্যমিক দ্বাদশ শ্রেণীর বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর | HS Class 12th Bengali Question and Answer

  1. করোনা ভাইরাস বা কোভিড ১৯ রচনা ।

Ans: ভূমিকা : বিজ্ঞানের বলে বলীয়ান হয়ে মানুষ যতই দাম্ভিক পদক্ষেপ রেখেছে ভূমিকম্প , ঝড় ইত্যাদি নানান প্রাকৃতিক বিপর্যয় মানুষকে ততোবার অসহায়তার সামনে দাঁড় করিয়ে দিয়েছে । প্রকৃতির কাছে মানুষ যে নেহাতই শিশু তা মনে করিয়ে দেবার জন্য প্রকৃতির শেষ মার হলো মহামারী । চিকিৎসা বিজ্ঞানের আকাশ ছোঁয়া উন্নতির পরেও প্রাচীনকাল থেকে আজও পৃথিবীকে শাসন করে চলেছে কলেরা , ডেঙ্গু , ম্যালেরিয়া , এইড্স , ক্যানসার এর মতো নানান মারণ রোগ । আর এই তালিকার নবতম সংযোজন হলো বর্তমান বিশ্বের ত্রাস করোনা ভাইরাস বা কোভিড ১৯ । 

করোনা ভাইরাস কী ? : করোনা ভাইরাস শব্দটি লাটিন ভাষার করোনা থেকে এসেছে যার অর্থ হলো মুকুট । ইলেকট্রনিক অনুবীক্ষণিক যন্ত্রে পাওয়া ছবিতে ভাইরাসের গায়ে গদার মতো প্রোটিনের আবরণ মুকুটের মতো দেখাচ্ছে । করোনা শব্দটি গ্রিক ভাষা থেকে এসেছে যার অর্থ মালা বা হার । করোনা ভাইরাস প্রথম আবিষ্কৃত হয় ১৯৬০ এর দশকে । প্রথমদিকে মুরগীর মধ্যে সংক্রামক ব্রঙ্কাইটিস ভাইরাস হিসেবে দেখা যায় । এছাড়াও গোরু , শূকর ইত্যাদি নানান প্রাণী দেহে নানান প্রজাতির ভাইরাস দেখা গেছে । আর এইসব প্রাণী দেহের থেকে মানুষের দেহে সংক্রমন হয়েছে । প্রসঙ্গত উল্লেখ্য যে , তিনটি প্রজাতি মানবদেহে মারাত্মক সংক্রমন ঘটিয়েছে তা হলো সার্স কোভিড ( ২০১২ ) , সার্স কোভিড ২ ( ২০১৯ ) যার সর্বাধিক প্রচলিত নাম কোভিড ১৯ । 

রোগ লক্ষণ ও সংক্রমন : যদি কোনো ব্যক্তি করোনা পজিটিভ হন তাহলে সাধারণত শুষ্ক কাশি , বমি , গলা বা মাথা ব্যথা , পেটের সমস্যার সৃষ্টি হয় । তারপর ধীরে ধীরে শ্বাস – প্রশ্বাসের সমস্যা দেখা যায় , এটা সাধারণত ফুসফুসকে আক্রমন করে । আবার কোনো কোনো সময়ে উপসর্গ ছাড়াও করোনা পজিটিভ হওয়ার খবর পাওয়া যাচ্ছে । WHO এর নির্দেশিকা অনুযায়ী উক্ত ভাইরাস ইনকিউরেশন পিরিয়ড ১৪ দিন থেকে ২৪ দিন পযন্ত দেখা যাচ্ছে । এই ভাইরাসের উৎসস্থল হলো চিনের হুবেই প্রদেশের উহান শহরে । চিন থেকে , কোভিড ১৯ ছড়িয়ে পড়েছে বিশ্বজুড়ে ভারতবর্ষে ও বাংলাদেশ সহ প্রায় ২১৩ টির বেশি দেশ আজ আক্রান্ত । তবে সবচেয়ে বড় কথা হলো এই ভাইরাসের বাহক হলো মানুষ । 

মহামারীরূপে কোভিড ১৯ : সাধারণত একই সময়ে যখন বিশ্বজুড়ে বহু দেশের মানুষ কোনো বিশেষ সংক্রামক রোগে আক্রান্ত হন তাকে বিশ্ব মহামারী বলে । ঐতিহাসিক ক্রমকে যদি ভালোভাবে লক্ষ্য করা যায় তবে দেখা যাবে যে , প্রতি একশ বছর পর পর মহামারী হতে দেখা গেছে । উদাহরণ স্বরূপ বলা যায় যে , ১৭২০ সালের প্লেগ , ১৮২০ সালে কলেরা , ১৯২০ সালে স্পানিশ ফ্লু আর ২০২০ সালে কোভিড ১৯। আর এই কোভিড ১৯ বীর দর্পে বিশ্বের সমস্ত দেশগুলিতে তার থাবা বসিয়ে বেড়াচ্ছে । আর তা থেকে বঞ্ছিত হয় নি আমাদের দেশও । সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী আমাদের ভারতবর্ষে কোভিড সক্রিয় ৯৬৮৩৭৭ জন তার মধ্যে সুস্থ হয়েছেন ৪৫৮৭৬১৩ জন এবং মারা গেছেন ৯০০২০ জন । 

প্রতিকারের উপায় : একদিকে মানুষের সংক্রমন ও মৃতের সংখ্যা যেমন বৃদ্ধি পাচ্ছে তেমনি গবেষকরা এর প্রতিষেধক আবিস্কার করতে নাস্তানুবাদ হচ্ছেন । অর্থাৎ নোবেল করোনা ভাইরাসের এখনও পর্যন্ত কোনো প্রতিষেধক নেই । তাহলে প্রশ্ন হলো সংক্রমনের হাত থেকে বাঁচার কী উপায় ? গবেষকগণ এর কিছু উপায় দিয়েছেন । সেগুলি নিম্নে আলোচনা করা হলো – 

(1) যেহেতু মানুষই প্রধান বাহক তাই সরকার দেশে লকডাউন কার্যকরী করেছেন । 

(2) লকডাউন না থাকলে মানুষকে সামাজিক দুরত্ব বিধি মেনে চলতে হবে ।

(3) যেহেতু নাক , মুখ এর মধ্যে দিয়ে শরীরে প্রবেশ করে ফুসফুসকে আক্রমন করে তাই মাস্ক পড়া একান্ত বাঞ্ছনীয় ।

(4) শরীরে অ্যান্ডিবডি তৈরি করতে সময় নেয় ১৪-২৪ দিন পর্যন্ত । তাই ৩৩ দিন । সুষম খাদ্য গ্রহণ করে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ানো উচিত । 

(5) মন সুস্থ রাখতে সৃষ্টিশীল কাজ করা উচিত ।

(6) বাইরে বেরোলে মাঝে মাঝে হাত স্যানিটাইজ করা উচিত । 

(7) পশু বাজার এড়িয়ে চলা উচিত । 

(8) বাইরে বেরোলে মাস্ক ব্যবহারের পাশাপাশি বাইরের পোষাক সঙ্গে সঙ্গে ধুয়ে ফেলা । সাবান শ্যাম্পু ব্যবহার করা উচিত । 

উপসংহার : প্রকৃতিকে যথেচ্চরূপে ব্যবহার করে সমাজ যখন উন্নয়নের চরম শিখরে পৌছয় ঠিক তখনই প্রকৃতিও তার উপযুক্ত শাস্তির নিদান দেন । সবকিছুকে আবার সুন্দর করে তোলার প্রয়াস দেখা যায় । এই মারণ ভাইরাসের কারণে বিপুল মানুষের মৃত্যু , অর্থনৈতিক মন্দা লক্ষ্য করা গেলেও একই মাঝে প্রকৃতি যেন নিজেকে অপরূপ সাজে সাজিয়ে নিয়েছেন এই লকডাউনের মধ্যে । তাই বলা যায় যে , এই মারণ ভাইরাসের দরুণ এক অপ্রাকৃত আনন্দের জগত সৃষ্টি হয়েছে পরিবেশের মাঝে । 

  1. ছাত্রজীবন বাংলা রচনা।

Ans: ভূমিকা : মানবজীবনে শিক্ষা ও বিদ্যাচর্চার কোনো বয়স নেই । তবুও প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষা ও বিদ্যার্জনের সময়কে সাধারণভাবে ছাত্রজীবন বলা চলে । ছাত্রজীবন জীবনের সর্বোৎকৃষ্ট সময় । এসময় মানুষের মন থাকে কলুষতা মুক্ত । জীবনে চলার পথের পাথেয় মানুষ ছাত্রজীবনে সঞ্চয় করে । ছাত্রজীবনে অর্জিত সুশিক্ষা , সৌজন্য , শিষ্টাচার , সমাজসেবা , দেশপ্রেম মানুষের মধ্যে জীবনভর বিরাজ করে । তাই এসময় পড়াশোনা , বিদ্যার্জন ও নানা দিকে ব্যুৎপত্তি অর্জন করলে বাকি জীবনটা বেশ মসৃণভাবে কাটে । 

ছাত্রজীবনে সৌজন্য ও শিষ্টাচার : মানবজীবনে অন্যতম শ্রেষ্ঠ সদ্‌গুণ হলো সৌজন্য ও শিষ্টাচার । শিষ্টাচারের মধ্য দিয়ে ছাত্র – ছাত্রীরা নিজের অন্তরাত্মার দেখা পায় । নিজেকে ভালোভাবে জানা ও অন্যকে বোঝার জন্য ছাত্রজীবনে শিষ্টাচারের সাধনা করতে হয় । প্রকৃত জ্ঞানলাভ করতে হলে ছাত্র – ছাত্রীদের শিষ্টাচারী হতেই হবে । কেননা নিরপেক্ষতাবোধ ও স্বার্থত্যাগের মতো মহৎ মনোবৃত্তি মানুষ শিষ্টাচারের মধ্য দিয়েই অর্জন করে । ছাত্রজীবনে মানুষকে বিদ্যার্জনের পাশাপাশি শিষ্টাচারের প্রাথমিক পাঠও গ্রহণ করতে হয় । অন্যদিকে , সৌজন্য মানুষের জীবনে অলংকার স্বরূপ । এটা এমন এক মনোবৃত্তি যেখানে আমাদের কোনো বিশেষ ব্যয় হয় না । মিষ্টভাষা , মিতভাষা , নম্রতা , ভদ্রতা মিলেমিশে সৌজন্যবোধ গড়ে উঠে । আসলে যাকে কিছু দেওয়া যায় না , তাকেও একটু সৌজন্য দেখানো যায় । এজন্য ছাত্রজীবনেই সৌজন্যবোধের পাঠ গ্রহণ করতে হবে যা সারা জীবন মানুষকে চলার পথে শক্তি জোগাবে ও সাফল্যের পথ প্রশস্ত করবে । 

ছাত্রজীবনে সমাজভাবনা : মানুষ সমাজবদ্ধ জীব । ছাত্রাবস্থায়ই মানুষকে সামাজিকতা , সমাজভাবনা , সমাজসেবা , পরিবেশ সচেতনতা , পারস্পরিক সহযোগিতা , সহমর্মিতা ইত্যাদি বিষয়ে শিক্ষার্জন করতে হয় । “ মানুষ মানুষের জন্য , জীবন জীবনের জন্য ” –এই মহান বাণী নিজের জীবনে অনুশীলন ও প্রয়োগের শ্রেষ্ঠ সময় ছাত্রজীবন । কর্মজীবনে কিংবা সংসারজীবনে প্রতিদিন আমাদের এসব বিষয়ের মুখোমুখি হতে হয় । তাই বিদ্যার্জনের পাশাপাশি ছাত্রজীবনে সমাজভাবনা , সমাজসেবা , পরিবেশ সচেতনা বিষয়ে যথাসম্ভব ব্যুৎপত্তি অর্জন করা জরুরি।

ছাত্রজীবনে নিয়মশৃঙ্খলা : বিশ্বের প্রতিটি উন্নত দেশ ও সব মহান ব্যক্তির প্রতিষ্ঠার নেপথ্যে রয়েছে নিয়মানুবর্তিতা ও শৃঙ্খলার চর্চা । কোন বিষয়টি কখন জরুরি , কোন কাজ ফেলে রাখা উচিত নয় , ব্যক্তিজীবনে কখন কী করতে হবে , কীভাবে চলতে হবে , কী করা উচিত নয় ইত্যাদি বিষয়ে ছাত্রজীবন থেকে সজাগ থাকলে বাকি জীবনটা অনেক মসৃণভাবে কেটে যায় । তাই পড়াশোনা ও বিদ্যার্জনের পাশাপাশি ছাত্রজীবনে নিয়মশৃঙ্খলার প্রাথমিক পাঠও গ্রহণ করতে হবে । 

ছাত্রজীবনে শরীরচর্চা : সুস্থ দেহে সুস্থ মনের বাস । তাই ছাত্রজীবনে সুস্বাস্থ্যের অধিকারী হওয়া জরুরি । এজন্য প্রয়োজন প্রতিদিন নিয়ম করে ব্যায়াম ও শরীরচর্চা করা । এতে শরীর নীরোগ ও নির্মল থাকে । নিয়মিত ব্যায়াম , সাঁতার , খেলাধুলা ইত্যাদির মধ্য দিয়ে সুস্বাস্থ্যের সঙ্গে সঙ্গে মনের স্বাস্থ্য ও তারুণ্যও বজায় থাকে । ছাত্রজীবনে গড়ে তোলা শরীর ও মনের সতেজতা বাকি জীবনে চলার পথে শক্তি জোগায় । x 

উপসংহার : আজকের ছাত্র – ছাত্রী আগামী দিনের সচেতন নাগরিক । দেশ ও জাতিকে পরিচালনার দায়িত্ব বর্তায় তাদের উপর । বর্তমান সমাজে অপসংস্কৃতি , অশিষ্টের দাপাদাপি দিন দিন বাড়ছে । ছাত্রজীবনে অর্জিত শিষ্টাচার কর্মজীবনে প্রয়োগ করে তারা সাফল্য পাবে । সেই সঙ্গে অশিষ্টের বাড়বাড়ন্ত রুখতেও এ শিষ্টাচার কাজে লাগে । তারুণ্যের ধর্মই অন্যায় – অসুন্দরের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়ানো । আর এই রুখে দাঁড়ানো যেন শিষ্টাচারের সীমা লঙ্গন না করে তার শিক্ষা মানুষ পায় ছাত্রজীবনে । সবদিক মিলিয়ে , ছাত্রজীবন এমনই এক প্ল্যাটফর্ম যেখানে অনেক পথ এসে মিশেছে — এর মধ্যে কোনটি বেছে নিলে জীবনটা মসৃণ হবে , দেশ – দশেরও মঙ্গল হবে তার সুচিন্তিত সিদ্ধান্ত ও পাঠ ছাত্রজীবনেই নিতে হবে । 

  1. জাতীয় সংহতির উদ্দেশ্য 

ভারতীয় জীবনচর্চা 

জাতীয় সংহতির সমস্যা হিন্দু – মুসলমান সমস্যা এবং অন্যান্য সমস্যা 

ভূমিকা জাতীয় সংহতি ও বিচ্ছিন্নতাবাদ সংহতির বিভিন্ন রূপ — ভাষাগত , শ্রেণিগত , আচরণগত , ধর্ম ও সাংস্কৃতিক সংহতি জাতীয় সংহতির অবনতি ও সাম্প্রদায়িকতার স্বরূপ সংহতি রক্ষায় ছাত্রসমাজ উপসংহার।

নানা ভাষা নানা মত 

নানা পরিধান 

বিবিধের মাঝে দেখ 

মিলন মহান

– অতুলপ্রসাদ সেন 

Ans: ভূমিকা : বৈচিত্র্যের মধ্যে ঐক্য প্রতিষ্ঠা করাই ভারতবর্ষের আদর্শগত ধারণা । জাতীয় সংহতি হলো জাতীয় ঐক্য । জাতীয় সংহতি না থাকলে দেশ নানাভাগে । বিভক্ত হয়ে পড়ে এবং দেশের শক্তি বিনষ্ট হয়ে যায় । তাই দেশের জাতীয় সংহতি থাকা একান্তই প্রয়োজন ।

জাতীয় সংহতির উদ্দেশ্য : জাতীয় জীবনে ভাষা , ধর্ম , বর্ণ , জাতি নির্বিশেষে সকলের মধ্যে আন্তরিক মেলবন্ধন ঘটানোই জাতীয় সংহতির উদ্দেশ্য । জাতীয় সংহতি যদি শক্তিশালী হয় তা হলে দেশের অন্তর্গত সামাজিক , রাজনৈতিক , অর্থনৈতিক ও সাংস্কৃতিক দিকগুলির চরম বিকাশ লক্ষ করা যায় । আর যদি সাম্প্রদায়িকতা ও বিচ্ছিন্নতাবাদে দেশ ছেয়ে যায় তা হলে সেই দেশের সভ্যতা অতল গভীরে তলিয়ে যায় ।

ভারতীয় জীবনচর্চা : সুপ্রাচীন কাল থেকেই ভারতবর্ষে বিভিন্ন ভাষাভাষী ও জাতি ধর্মের মানুষ একসঙ্গে বাস করে আসছে । বিভিন্ন সময়ে শক , হুন , মোঘল , পাঠান এবং সবশেষে ইংরেজ ভারতবর্ষের সংহতির ঐতিহ্যে আঘাত হেনেছে । মানুষ হতাশার অন্ধকারে পথ হাতড়েছে কিন্তু হামাগুড়ি দিয়ে মেরুদণ্ড সোজা করে আবার বৈচিত্র্যের মধ্যে ঐক্যকে প্রতিষ্ঠা করেছে । → 

সংহতির বিভিন্ন রূপ : ভারতবর্ষের জাতীয় সংহতির বিভিন্ন রূপ লক্ষ করা যায় । যেমন ১. ভাষাগত সংহতি , ২. শ্রেণিগত সংহতি , ৩.  আচরণগত সংহতি , ৪. ধর্ম ও সাংস্কৃতিক সংহতি । 

১. ভাষাগত সংহতি : হিন্দি ও ইংরেজি রাষ্ট্রভাষা হলেও রাজ্যে রাজ্যে বাংলা , ওড়িয়া , তেলেগু প্রভৃতি কতই না আঞ্চলিক ভাষা এদেশের মানুষ ভাবের আদান প্রদান ঘটায় অথচ এই বিভিন্ন ভাষা – ভাষীর মধ্যে মিলনক্ষেত্রে রচিত হয়েছে জাতীয় সংহতি । 

২. শ্রেণিগত সংহতি : হিন্দু , মুসলমান , জৈন , খ্রিস্টান প্রভৃতি শ্রেণি ও বর্ণের মানুষ এই ভারতভূমিতে বাস করে আসছে । কিন্তু তারা পরস্পর পরস্পরকে ভ্রাতৃত্বের বন্ধনে আবন্ধ করে ভারতবর্ষের গৌরব বৃদ্ধি করেছে । 

৩. আচরণগত সংহতি : যেখানে নানা বর্ণ , ধর্ম ও বহু ভাষাভাষী মানুষ বসবাস করছে এখানে তাদের আচার আচরণও যে ভিন্ন ধরনের হবে তাই স্বাভাবিক কিন্তু আদিলগ্ন থেকেই সকলের আচরণকে মেনে নিয়ে একই ভূখণ্ডে দীর্ঘদিন থেকে বসবাস করে আসছে ।

৪. ধর্ম ও সাংস্কৃতিক সংহতি : ভারতবাসীর ধর্মীয় বিশ্বাস এক নয় , আবার সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যও ভিন্ন ধরনের তবুও ধর্ম ও সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য ফল্গু ধারার মতো প্রবাহিত হয়ে হিন্দু , মুসলমান , জৈন , খ্রিস্টান প্রভৃতি ধর্মের মানুষের মধ্যে মিলনসেতু রচনা করেছে । 

জাতীয় সংহতির অবনতি ও সাম্প্রদায়িকতার স্বরূপ : ঐতিহ্যবাহী ভারতবর্ষ জাতীয় ঐক্যকে অটুট রাখলেও আজ দেশের বিভিন্ন প্রান্তে সাম্প্রদায়িক বিচ্ছিন্নতাবাদী শক্তিগুলি মাথাচাড়া দিয়ে উঠছে ।

হিন্দু – মুসলমান সমস্যা : ব্রিটিশ শক্তি দ্বিজাতিতত্ত্বের ধারণা ঢুকিয়ে দেওয়ার পর থেকেই হিন্দু – মুসলিম বার বার সংঘর্ষে লিপ্ত হয়েছে যার জ্বলন্ত প্রমাণ বাবরি মসজিদ বিতর্ক , কাশ্মীর নিয়ে সাম্প্রদায়িক আন্দোলন বর্তমানে ভারতবর্ষকে ভাবিয়ে তুলেছে । 

অন্যান্য সমস্যা : পশ্চিমবঙ্গের কামতাপুরি , জনযুদ্ধ গোষ্ঠী , মাওবাদী প্রভৃতি সংগঠন হিংসাত্বক কার্যকলাপ দেশকে বিপদের মুখে ঠেলে দিচ্ছে । এর মধ্যে আবার চলছে জঙ্গি ও সন্ত্রাসবাদীদের সন্ত্রাস সৃষ্টির প্রচেষ্টা । 

সংহতি রক্ষায় ছাত্রসমাজ : আজকের ছাত্ররা আগামী দিনের কর্মবীর । তাই তাদের অন্ধ কুসংস্কার , গোঁড়ামি , রাজনীতি ও সংকীর্ণতার বিরুদ্ধে দেশ রক্ষার দায়িত্ব নিতে হবে । 

জাতীয় ঐক্য গড়ে তোলার জন্য মানুষকে আহ্বান জানাতে হবে— 

“ ধর্মের বেশে মোহ এসে ফেরে 

ধয়ে অন্ধ সেজন মায়ে তার শুধু মার ” 

সব শ্রেণীর মানুষকে বোঝাতে হবে

 “ সবার উপরে মানুষ সত্য , তাহার উপরে নাই ” 

সর্বোপরি মানুষের কুসংস্কারাচ্ছন্ন মনকে শিক্ষার আলোয় আলোকিত করতে হবে । 

  1. প্রণব মুখোপাধ্যায় রচনা ।

Ans: Click Here

  1. সৈয়দ মুজতবা আলি ( ১৯০৪-১৯৭৪ ) রচনা ।

Ans: Click Here

  1. সুনীল গঙ্গোপাধ্যায় (১৯৩৪-২০১২) রচনা । 

Ans : Click Here

  1. প্রিয় কবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর রচনা ।

Ans: Click Here

  1. জগদীশচন্দ্র বসু রচনা । 

Ans: Click Here

  1. ঈশ্বরচন্দ্র বিদ্যাসাগর রচনা ।

Ans : Click Here

  1. শচীন টেন্ডুলকার রচনা।

Ans: Click Here

  1. এ.পি.জে. আবদুল কালাম রচনা ।

Ans : Click Here

  1. সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায় রচনা।

Ans : Click Here

  1. জগদীশ চন্দ্র বসু রচনা ।

Ans : Click Here

 উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর – West Bengal HS Class 12th Bengali Question and Answer / Suggestion / Notes Book

আরোও কিছু প্রশ্ন ও উত্তর দেখুন :-

উচ্চমাধ্যমিক বাংলা সমস্ত অধ্যায়ের প্রশ্নউত্তর Click Here

 উচ্চমাধ্যমিক সাজেশন ২০২২ – HS Suggestion 2022

আরোও দেখুন:-

HS Bengali Suggestion 2022 Click here

আরোও দেখুন:-

HS English Suggestion 2022 Click here

আরোও দেখুন:-

HS History Suggestion 2022 Click here

আরোও দেখুন:-

HS Geography Suggestion 2022 Click here

আরোও দেখুন:-

HS Political Science Suggestion 2022 Click here

আরোও দেখুন:-

HS  Philosophy Suggestion 2022 Click here

আরোও দেখুন:-

HS Sanskrit Suggestion 2022 Click here

আরোও দেখুন:-

HS Education Suggestion 2022 Click here

Info : HS Bengali Suggestion | West Bengal WBCHSE Class Twelve XII (Class 12th) Bengali Qustion and Answer Suggestion 

উচ্চমাধ্যমিক বাংলা সাজেশন – প্রবন্ধ রচনা প্রশ্ন ও উত্তর   

” উচ্চমাধ্যমিক বাংলা –  প্রবন্ধ রচনা – প্রশ্ন উত্তর  “ একটি অতি গুরুত্বপূর্ণ টপিক উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা (West Bengal Class Twelve XII  / WB Class 12  / WBCHSE / Class 12  Exam / West Bengal Board of Secondary Education – WB Class 12 Exam / Class 12 Class 12th / WB Class 12 / Class 12 Pariksha  ) এখান থেকে প্রশ্ন অবশ্যম্ভাবী । সে কথা মাথায় রেখে Bhugol Shiksha .com এর পক্ষ থেকে উচ্চমাধ্যমিক বাংলা পরীক্ষা প্রস্তুতিমূলক সাজেশন এবং প্রশ্ন ও উত্তর ( উচ্চমাধ্যমিক বাংলা সাজেশন / উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ও উত্তর । HS Bengali Suggestion / HS Bengali Question and Answer / Class 12 Bengali Suggestion / Class 12 Pariksha Bengali Suggestion  / Bengali Class 12 Exam Guide  / MCQ , Short , Descriptive  Type Question and Answer  / HS Bengali Suggestion  FREE PDF Download) উপস্থাপনের প্রচেষ্টা করা হলাে। ছাত্রছাত্রী, পরীক্ষার্থীদের উপকারেলাগলে, আমাদের প্রয়াস উচ্চমাধ্যমিক বাংলা পরীক্ষা প্রস্তুতিমূলক সাজেশন এবং প্রশ্ন ও উত্তর (HS Bengali Suggestion / West Bengal Twelve XII Question and Answer, Suggestion / WBCHSE Class 12th Bengali Suggestion  / HS Bengali Question and Answer  / Class 12 Bengali Suggestion  / Class 12 Pariksha Suggestion  / HS Bengali Exam Guide  / HS Bengali Suggestion 2022, 2023, 2024, 2025, 2026, 2027, 2028, 2029, 2030, 2021, 2020, 2019, 2017, 2016, 2015 / HS Bengali Suggestion  MCQ , Short , Descriptive  Type Question and Answer. / HS Bengali Suggestion  FREE PDF Download) সফল হবে।

প্রবন্ধ রচনা প্রশ্ন ও উত্তর  

প্রবন্ধ রচনা – প্রশ্ন ও উত্তর | প্রবন্ধ রচনা HS Bengali Question and Answer Suggestion  উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর  – প্রবন্ধ রচনা প্রশ্ন ও উত্তর।

প্রবন্ধ রচনা MCQ প্রশ্ন ও উত্তর | উচ্চমাধ্যমিক বাংলা 

প্রবন্ধ রচনা MCQ প্রশ্ন ও উত্তর | প্রবন্ধ রচনা HS Bengali Question and Answer Suggestion  উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর  – প্রবন্ধ রচনা MCQ প্রশ্ন উত্তর।

প্রবন্ধ রচনা SAQ সংক্ষিপ্ত প্রশ্ন ও উত্তর | দ্বাদশ শ্রেণির বাংলা 

প্রবন্ধ রচনা SAQ সংক্ষিপ্ত প্রশ্ন ও উত্তর | প্রবন্ধ রচনা HS Bengali Question and Answer Suggestion  উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর  – প্রবন্ধ রচনা SAQ সংক্ষিপ্ত প্রশ্ন উত্তর।

দ্বাদশ শ্রেণি বাংলা  – প্রবন্ধ রচনা MCQ প্রশ্ন উত্তর | HS Bengali  

উচ্চমাধ্যমিক বাংলা (HS Bengali) – প্রবন্ধ রচনা – প্রশ্ন ও উত্তর | প্রবন্ধ রচনা | HS Bengali Suggestion  উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর  – প্রবন্ধ রচনা প্রশ্ন উত্তর।

উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর  | দ্বাদশ শ্রেণির বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর  – প্রবন্ধ রচনা প্রশ্ন উত্তর | HS Bengali Question and Answer Question and Answer, Suggestion 

উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর – প্রবন্ধ রচনা | উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর – প্রবন্ধ রচনা | পশ্চিমবঙ্গ উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর – প্রবন্ধ রচনা | উচ্চমাধ্যমিক বাংলা সহায়ক – প্রবন্ধ রচনা – প্রশ্ন ও উত্তর । HS Bengali Question and Answer, Suggestion | HS Bengali Question and Answer Suggestion  | HS Bengali Question and Answer Notes  | West Bengal HS Class 12th Bengali Question and Answer Suggestion. 

উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর   – প্রবন্ধ রচনা MCQ প্রশ্ন উত্তর | WBCHSE Class 12 Bengali Question and Answer, Suggestion 

উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর  – প্রবন্ধ রচনা প্রশ্ন উত্তর প্রশ্ন ও উত্তর  | প্রবন্ধ রচনা । HS Bengali Suggestion.

WBCHSE Class 12th Bengali Suggestion  | উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর   – প্রবন্ধ রচনা

WBCHSE HS Bengali Suggestion উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর  – প্রবন্ধ রচনা প্রশ্ন উত্তর প্রশ্ন ও উত্তর  । প্রবন্ধ রচনা | HS Bengali Suggestion  উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর – প্রবন্ধ রচনা – প্রশ্ন উত্তর প্রশ্ন ও উত্তর ।

HS Bengali Question and Answer Suggestions  | উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর – প্রবন্ধ রচনা | উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর 

HS Bengali Question and Answer  উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর – প্রবন্ধ রচনা উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর  HS Bengali Question and Answer উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর  প্রশ্ন ও উত্তর – প্রবন্ধ রচনা MCQ, সংক্ষিপ্ত, রোচনাধর্মী প্রশ্ন ও উত্তর  । 

WB Class 12 Bengali Suggestion  | উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর   – প্রবন্ধ রচনা MCQ প্রশ্ন উত্তর প্রশ্ন ও উত্তর 

HS Bengali Question and Answer Suggestion উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর – প্রবন্ধ রচনা MCQ প্রশ্ন ও উত্তর । HS Bengali Question and Answer Suggestion  উচ্চমাধ্যমিক বাংলা প্রশ্ন ও উত্তর।

West Bengal Class 12  Bengali Suggestion  Download WBCHSE Class 12th Bengali short question suggestion  . HS Bengali Suggestion   download Class 12th Question Paper  Bengali. WB Class 12  Bengali suggestion and important question and answer. Class 12 Suggestion pdf.পশ্চিমবঙ্গ দ্বাদশ শ্রেণীর বাংলা পরীক্ষার সম্ভাব্য সাজেশন ও শেষ মুহূর্তের প্রশ্ন ও উত্তর ডাউনলোড। উচ্চমাধ্যমিক বাংলা পরীক্ষার জন্য সমস্ত রকম গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্ন ও উত্তর।

Get the HS Bengali Question and Answer Question and Answer by Bhugol Shiksha .com

HS Bengali Question and Answer Question and Answer prepared by expert subject teachers. WB Class 12  Bengali Suggestion with 100% Common in the Examination .

Class Twelve XII Bengali Suggestion | West Bengal Board WBCHSE Class 12 Exam 

HS Bengali Question and Answer, Suggestion Download PDF: WBCHSE Class 12 Twelve XII Bengali Suggestion  is provided here. HS Bengali Question and Answer Suggestion Questions Answers PDF Download Link in Free has been given below. 

উচ্চমাধ্যমিক বাংলা – প্রবন্ধ রচনা প্রশ্ন ও উত্তর | HS Bengali Question and Answer 

        অসংখ্য ধন্যবাদ সময় করে আমাদের এই ” উচ্চমাধ্যমিক বাংলা – প্রবন্ধ রচনা প্রশ্ন ও উত্তর | HS Bengali Question and Answer  ” পােস্টটি পড়ার জন্য। এই ভাবেই Bhugol Shiksha ওয়েবসাইটের পাশে থাকো যেকোনো প্ৰশ্ন উত্তর জানতে এই ওয়েবসাইট টি ফলাে করো এবং নিজেকে  তথ্য সমৃদ্ধ করে তোলো , ধন্যবাদ।